গাংনীর চরগোয়ালগ্রামে বেপরোয়া চোরচক্রের সদস্যরা

গাংনী প্রতিনিধি: মেহেরপুর গাংনীর চরগোয়ালগ্রামে বেপরোয়া হয়ে উঠেছে চোর। কয়েকটি বাড়িঘরে চুরির ঘটনায় গ্রামজুড়ে চোর আতঙ্ক বিরাজ করছে। গত শনিবার মধ্যরাতে মরিচ ব্যবসায়ী সিদ্দিক আলীর বাড়ি থেকে নগদ টাকা ও সোনার গয়না চুরি হয়েছে।
স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, মটমুড়া ইউনিয়নের চরগোয়ালগ্রামের মৃত আকুব্বার আলীর ছেলে সিদ্দিক আলী পরিবার-পরিজন নিয়ে ঘরের বারান্দায় ঘুমিয়ে ছিলেন। গভীর রাতে কয়েক চোর হানা দেয়। মরিচ বিক্রির টাকা ও তার মেয়ের সোনার গয়না লুটে নিয়ে পালিয়ে যায়। এদিকে শুক্রবার গভীর রাতে চোরের দল মৃত আব্দুল আজিজের ছেলে সুব্বাজ আলীর ঘরের জানালা ভেঙে ভেতরে প্রবেশ করে। নগদ ১০ হাজার টাকা ও জমির দলিলসহ একটি বাক্স নিয়ে পালিয়ে যায়। চলতি মাসের মাঝামাঝি একই গ্রামের ওয়াজ সরদারের ছেলে হায়দার আলীর বাড়িতে চোর হানা দিয়ে কাপড় ভর্তি বাক্স নিয়ে যায়। সকালে বাড়ির পাশর্^বর্তী মাঠে বাক্সটি পড়ে থাকতে দেখেন পরিবারের লোকজন।
ভুক্তভোগীরা বলেন, গ্রামে চিহ্নিত কতিপয় লোক চুরির সাথে জড়িত। কিন্তু তাদের ভয়ে মুখ খোলার জো নেই। তাই পরিবার-পরিজন নিয়ে নিরাপদে থাকার চেষ্টা করছেন। কিন্তু সবার বাড়িতে তো আর পাঁচিল নেই। যাদের বাড়িঘরে সহজেই প্রবেশ করা যায় এমন বাড়ি চোরদের লক্ষ্যবস্তুতে পরিণত হয়েছে। ফলে চোর ও চুরি আতঙ্কে দিশেহারা ওই গ্রামের সাধারণ মানুষ।
গাংনী থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ার হোসেন বলেন, কেউ এ ব্যাপারে থানায় অভিযোগ কিংবা মৌখিকভাবেও আমাকে অবগত করেননি। ভুক্তভোগীদের অবশ্যই পুলিশের সহায়তা নেয়া উচিত। তবে চোরচক্রের সদস্যদের চিহ্নিত করে দ্রুত তাদের গ্রেফতার করা হবে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *