গাংনীতে পুলিশের পৃথক দুটি অভিযান : ফেনসিডিল ও গান পাউডারসহ গ্রেফতার ২

গাংনী প্রতিনিধি: মেহেরপুর গাংনীতে পুলিশের পৃথক দুটি অভিযানে ৪শ বোতল ফেনসিডিল ও ৬শ গ্রাম গান পাউডারসহ দুইজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। গ্রেফতার দুজন হচ্ছে- গাংনী উপজেলার চরগোয়ালগ্রামের ইমারুদ্দীনের ছেলে ইয়ারুল ইসলাম (৩৮) ও কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার কষবা বেলগাছিপাড়ার ইউনুছ আলীর ছেলে রাকিব ওরফে রোকন (২৫)।

গাংনী থানা সূত্রে জানা গেছে, গতকাল মঙ্গলবার ভোরে সহড়াতলা সীমান্ত থেকে শ্যালোইঞ্জিনচালিত ট্রলিতে অভিনব কায়দায় ফেনসডিল কুষ্টিয়ার উদ্দেশে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিলো। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বামন্দী পুলিশ ক্যাম্প ইনচার্জ এসআই মোস্তাক আহমেদ সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে বামন্দী-দেবীপুর সড়কে অবস্থান করছিলেন। একপর্যায়ে ট্রলিচালক রকিব হোসেনকে গ্রেফতার করেন। ট্রলির তলা খুলে অভিনব কায়দায় স্থাপিত জায়গা থেকে ফেনসিডিলগুলো উদ্ধার করা হয়। অপরদিকে সোমবার বিকেলে নওদা মটমুড়া নামক স্থান থেকে এএসআই কামরুল ইসলাম সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে অভিযান চালিয়ে ইয়ারুল ইসলামকে ৬শ গ্রাম গান পাউডারসহ আটক করেন। কাজিপুর সীমান্ত থেকে বোমা তৈরির গান পাউডার নিয়ে কুষ্টিয়ায় যাচ্ছিলো ইয়ারুল। উদ্ধার হওয়া গান পাউডার দিয়ে প্রায় দেড়’ বোমা তৈরি সম্ভব বলে জানায় পুলিশ। ইয়ারুলের ভাই ডবল মার্ডার কেসের আসামি আতিয়ার রহমান ভারতীয় সীমান্তে বসে গান পাউডারের ব্যবসা করছে বলে ধারণা করছে পুলিশ। গ্রেফতার ইয়ারুল ইসলাম একজন বোমা ব্যবসায়ী। গাংনী থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ার হোসেন জানান, পৃথক দুটি মামলায় আটক দুজনকে আদালতে সোর্প করা হয়েছে। বোমা ও ফেনসিডিল সরবরাহকারীদের গ্রেফতারে পুলিশের অভিযান চলছে।

 

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *