ভ্যাপসা গরমে স্বস্তি খুঁজতে পুকুরে নেমে বিপত্তি: পানিতে ডুবে গাড়াবাড়িয়ায় শিশুর মৃত্যু

 

স্টাফ রিপোর্টার: চুয়াডাঙ্গা জেলা সদরের গাড়াবাড়িয়া বাগানপাড়ার ৫ বছরের সামাদ পানিতে ডুবে মারা গেছে। গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে ভ্যাপসা গরমে স্বস্তি খুঁজতে সমবয়সীদের সাথে পুকুরে নেমে সে ডুবে যায়। পরে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নেয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

জানা গেছে, গাড়াবাড়িয়া বাগানপাড়ার কৃষক আব্দুস সলামের দু ছেলে ও এক মেয়ের মধ্যে সামাদ ছিলো ছোট। ভ্যাপসা গরমে স্বস্তির আশায় সে তার সমবয়সীদের সাথে বাড়ির অদূরবর্তী আবুল কাশেমের পুকুরে গোসল করতে নামে। গোসল করতে নেমে সে নিখোঁজ হয়। শুরু হয় খোঁজাখুঁজি। এক পর্যায়ে উদ্ধার করে নেয়া হয় চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে। কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত বলে ঘোষণা করলে নিজ গ্রামে নিয়ে দাফন কাজ সম্পন্ন করা হয়। শিশুসন্তান হারিয়ে মা তাজ্জীনা খাতুন কান্নায় ভেঙে পড়েন। তার আহাজারিতে এলাকার বাতাস ভারী হয়ে ওঠে।

গত কয়েকদিন ধরেই চুয়াডাঙ্গায় ভ্যাপসা গরমে দেদারছে ঘামছে মানুষ। অস্বস্তির মাত্রা বেড়েছে কয়েকগুন। গতকাল বৃহস্পতিবার চুয়াডাঙ্গায় সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৬ দশমিক ২ ও সর্বনিম্ন ২৭ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়। সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রার ব্যবধানেই স্পষ্ট চুয়াডাঙ্গায় অস্বস্তির মাত্রা কোথায় গিয়ে দাঁড়িয়েছে। বাতাসে জলীয়বাষ্পের উপস্থিতির কারণে তাপমাত্রা কম হলেও অসহনীয় গরম উপলব্ধি হচ্ছে। শরীর থেকে দেদারছে ঘাম ঝরছে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *