চুয়াডাঙ্গা-মেহেরপুর ও ঝিনাইদহে তারেক রহমানের কারামুক্ত দিবস পালিত : মেহেরপুরে পুলিশি বাধা

মাথাভাঙ্গা ডেস্ক: শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের যোগ্য উত্তরাধিকার বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তরুণ প্রজন্মের অহঙ্কার, আগামী দিনের রাষ্ট্র নায়ক। তারেক রহমানের ৬ষ্ঠ কারা মুক্তি দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী ছাত্রদল কেন্দ্রীয় সংসদ সারাদেশে ৱ্যালি ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল বুধবার এ কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়। কেন্দ্র ঘোষিত অংশ হিসেবে চুয়াডাঙ্গা-মেহেরপুর ও ঝিনাইদহে এ কর্মসূচি পালন করা হয়। চুয়াডাঙ্গা জেলা ছাত্রদলের বর্ণাঢ্য ৱ্যালি ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। অপরাংশও ৱ্যালি ও সমাবেশ করে। অন্যদিকে চুয়াডাঙ্গার আলমডাঙ্গায় এবং দর্শনায় বিএনপি আয়োজিত এক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। দর্শনায় সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চুয়াডাঙ্গা জেলা বিএনপির সভাপতি হাজি মো. মোজাম্মেল হক।

এদিকে মেহেরপুরের ৱ্যালিটি শহর প্রদক্ষিণের সময় পুলিশি বাধার মুখে পড়ে। এ সময় ওই স্থানেই সংক্ষিপ্ত সমাবেশ করেন ছাত্রদল নেতাকর্মীরা। এছাড়া চুয়াডাঙ্গা ও ঝিনাইদহের ৱ্যালি ছিলো শান্ত। সমাবেশে বক্তারা বক্তব্য দিতে গিয়ে বলেন, বর্তমান সরকার জনগণকে ধোকা দিয়ে আবারো ক্ষমতায় যাওয়ার অপচেষ্টায় মেতেছে। তারেক রহমানের বিরুদ্ধে যতোই ষড়যন্ত্র করা হোক না কেন তা শক্ত হাতে আমরা প্রতিহত করবো। এ সরকারকে গণ আন্দোলনের মাধ্যমে হটিয়ে তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা পুনর্বহাল করতে হবে। বক্তারা অবিলম্বে তারেক রহমানের বিরুদ্ধে সকল মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করারও দাবি জানান। সেইসাথে বেগম জিয়ার ডাকে যেকোনো আন্দোলনে ঝাঁপিয়ে পড়ার আহ্বানও জানানো হয়।

শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের যোগ্য উত্তরাধিকার বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তরুণ প্রজন্মের অহঙ্কার, আগামী দিনের রাষ্ট্র নায়ক। তারেক রহমানের ৬ষ্ঠ কারা মুক্তি দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী ছাত্রদল কেন্দ্রীয় সংসদ সারাদেশে ৱ্যালি ও সমাবেশ কর্মসূচির ঘোষণা করে। এ কর্মসূচির অংশ হিসেবে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী ছাত্রদল চুয়াডাঙ্গা জেলা শাখার উদ্যোগে গতকাল সাড়ে১১ টার দিকে জেলা বিএনপির কার্যালয় থেকে বর্ণাঢ্য ৱ্যালি বের হয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে পুনরায় দলীয় কার্যালয়ের সামনে এসে সমাবেশ করে। সভাপতিত্ব করেন জেলা ছাত্রদলের আহ্বায়ক শরীফ-উর-জামান সিজার। প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা ছাত্রদলের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি জেলা বিএনপির যুগ্মসম্পাদক অ্যাড. ওয়াহেদুজ্জামান বুলা। জেলা ছাত্রদলের সিনিয়র যুগ্মআহ্বায়ক কেন্দ্রীয় সদস্য এম.এ তালহার উপস্থাপনায় সমাবেশে বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা ছাত্রদলের যুগ্মআহ্বায়ক মঞ্জুরুল জাহিদ, জাবেদ মোহা. রাজিব খান, জেড এম. তৌফিক খান, সোহেল আহমেদ মালিক সুজন। এছাড়াও আরও উপস্থিত ছিলেন পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক মজিবুল হক মজু। সমাবেশে প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, দেশি-বিদেশি চক্রান্তের সূদুর প্রসারি ষড়যন্ত্রের ফলস্রুতিতে সেই সময় জনপ্রিয়তার শীর্ষে থাকা তারুণ্যের  অহঙ্কার তারেক রহমানকে রাজনৈতিকভাবে নির্বাসিতকরার উদ্দেশেই তাকে গ্রেফতার করা হয়েছিলো। গ্রেফতারের পর থেকে আজ অবধি নানা কাল্পনিক মামলা দিয়ে তাকে বির্তকিত করার সকল চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। কিন্তু দেশবাসীর সামনে সঠিখ ও সত্য বিষয়টি এখন স্পষ্টভাবে প্রতীয়মান। দেশ ও জনগণের কাঙ্খিত নেতা তারেক রহমান খুব শীঘ্রই দেশের মাটিতে এসে নেতৃত্ব দেবেন। ছাত্র নেতৃবৃন্দ তাদের বক্তব্য বলেন, এদেশের ছাত্র জনাতার  প্রান শক্তি সময়ের মহানায়ক তারেক রহমান সকল ষড়যন্ত্রের জাল মাড়িয়ে আমদের মাঝে ফিরে আসবেন। সেদিন আর বেশি দূরে নয়। যেদিন তিনি এদেশের মাটিতে পা রাখবেন সেদিন আওয়ামী বাকশালীদের বিরুদ্ধে এক গণ বিপ্লবের সৃষ্টি হবে। তার গতিশীল ও যুগউপযোগী নেতৃতেই  আমদের প্রিয় স্বদেশের নতুন যাত্রা শুরু হবে। ৱ্যালি ও সমাবেশে উল্লেখিত নেতৃবৃন্দ ছাড়াও জেলা ছাত্রদলের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য, চুয়াডাঙ্গা সদর, আলমডাঙ্গা, দামুড়হুদা, দর্শনা ও জিবননগরের  বিভিন্ন ইউনিট সমূহের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

এ দিবস উপলক্ষে চুয়াডাঙ্গা জেলা ছাত্রদল একাংশের উদ্যোগে বিকেল ৫টায় কোর্ট মোড় থেকে শুরু হয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে পুনরায় কোর্ট মোড়ে এসে সমাবেশে মিলিত হয়। সভাপতিত্ব করেন চুয়াডাঙ্গা জেলা ছাত্রদলের যুগ্মআহ্বায়ক শাহাজাহান খান। প্রধান অতিথি ছিলেন বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্য্যনির্বাহী কমিটির সদস্য মুহা. অহিদুল ইসলাম বিশ্বাস। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির যুগ্মসম্পাদক মাহমুদুল হক পল্টু, সাংগঠনিক সম্পাদক রউফুন নাহার রীনা। জেলা ছাত্রদল নেতা সাইফুল ইসলাম সুমনের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন সদর উপজেলা ছাত্রদলের সভাপতি মাসুদুল হক মাসুদ, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মমিন, পৌর ছাত্রদল সভাপতি ইমরান মহলদার রিন্টু, চুয়াডাঙ্গা সরকারি কলেজ ছাত্রদল সভাপতি আশিকুল হক শিপুল, সাধারণ সম্পাদক ওয়ালিদ হাসান, জেলা ছাত্রদল নেতা মাসুদ রানা মুক্ত। প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, এ জালেম সরকার জননেতা তারেক রহমানের জনপ্রিয়তায় ভীত হয়ে তার নামে ষড়যন্ত্রমূলক যে মিথ্যা মামলা দায়ের করেছে তা অবিলম্বে প্রত্যাহার করতে হবে। উপস্থিত ছিলেন জেলা বিএনপির সহদফতর সম্পদক হাবিবুর রহমান স্কয়ার, জেলা ওলামা দলের যুগ্মআহ্বায়ক হাফেজ মাহবুবুল আলম, চুয়াডাঙ্গা পৌর যুবদলের আহ্বায়ক হাজী রবিউল হক মল্লিক, যুগ্মআহ্বায়ক  আজিজুল হক, তানভির আহাম্মেদ, জেলা তরুন দলের আহ্বায়ক মাসুদ সরকার, যুগ্ম আহ্বায়ক সাইদুর রহমান, সদর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের আহ্বায়ক মিজানুর রহমান, জেলা যুবদলের সদস্য মোবারক, আরিফ, আলুকদিয়া ইউনিয়ন বিএনপির যুগ্মসম্পাদক আক্তারুজ্জামান আক্তার, সদর উপজেলা তরুণ দলের আহ্বায়ক শাহিনুজ্জামান শাহিন প্রমুখ।

এদিকে এ দিবস উপলক্ষে ছাত্রদলের উদ্যোগে কোর্টমোড়স্থ জেলা বিএনপির অস্থায়ী কার্যালয়ে বিক্ষোভ সমাবেশ  অনুষ্ঠিত। বুধবার বিকেল ৫টার দিকে চুয়াডাঙ্গা সরকারি কলেজ শাখা, পৌর কলেজ শাখা ও চুয়াডাঙ্গা পলিটেকনিক্যাল ইন্সটিটিউট শাখার যৌথ উদ্যোগে এ দিবস উপলক্ষে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সভাপতিত্ব করেন চুয়াডাঙ্গা সরকারি কলেজ শাখার ছাত্রনেতা বিপুল বিশ্বাস। প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ঢাকা জেলার ধামরাইল থানা ছাত্রদলের সহসভাপতি পৌর কলেজ শাখার ছাত্রনেত্রী জনাবা নিছা ইয়াসমিন বর্ষা। বিশেষ অতিথি ছিলেন সরকারি কলেজ শাখার ছাত্রনেতা রাশেদ সরকার, রাব্বি, মাহাবুব, টিটু, শাহীন, মনিরুল ইসলাম, অনিক সরকার, হাসিবুল প্রমুখ।

দর্শনা অফিস জানিয়েছে, জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির ৩৫তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী ও দলের সিনিয়র যুগ্নমহাসচিব তারেক রহমানের ৬ষ্ঠ কারামুক্ত দিবস পালিত হয়েছে। ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীনপনার মধ্যদিয়ে দর্শনা পৌর বিএনপির মূলধারার আয়োজনে গতকাল বুধবার বিকেলে কেরুজ বাজার মাঠে অনুষ্ঠিত হয় আলোচনাসভা। আলোচনা শেষে বর্ণাঢ্য ৱ্যালি শহরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করা হয়েছে। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে চুয়াডাঙ্গা-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য চুয়াডাঙ্গা জেলা বিএনপির সভাপতি হাজি মোজাম্মেল হক বলেন, বর্তমান সরকার জনগণকে ধোকা দিয়ে আবারো ক্ষমতায় যাওয়ার অপচেষ্টায় মেতেছে। জন বিচ্ছিন্ন আ.লীগ সরকার ১৮ দলীয় জোটের গণজোয়ার দেখে বেসামাল হয়ে পড়েছে। তাই তারা তত্ত্বাবধায়ক সরকারে অধীনে নির্বাচনে যেতে ভয় পাচ্ছে। তারেক রহমানের বিরুদ্ধে যতোই ষড়যন্ত্র করা হোক না কেন তা শক্ত হাতে আমরা প্রতিহত করবো। এ সরকারকে গণ আন্দোলনের মাধ্যমে হটিয়ে তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা পুনর্বহাল করতে হবে। আ.লীগ সরকার সংবিধান থেকে বিসমিল্লাহ বাদ দিয়ে ধর্মীয় অনুভূতিতে চরমভাবে আঘাত হেনেছে। দর্শনা পৌর বিএনপির সভাপতি হাজি খন্দকার শওকত আলীর সভাপতিত্বে সভায় বিশেষ অতিথির ববক্তব্য রাখেন চুয়াডাঙ্গা জেলা যুবদলের আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট ওহেদুজ্জামান বুলা, দামুড়হুদা উপজেলা বিএনপির সভাপতি লিয়াকত আলী শাহ, বিএনপি নেতা আজাহার আলী মাস্টার, রতন, মীর লিয়াকত আলী, আসলাম আলী, মিলন, মাসুদ, মোহাম্মদ আলী শাহ মিন্টু, শওকত আলী, কামরুজ্জামান টুনু, আজিজুর রহমান, মিজান উদ্দীন, সোহরাব হোসেন, ডাক্তার হায়দার, আবুল কাশেম, আব্দুর রাজ্জাক, আব্দুল খালেক, নুরু মিয়া, আমিনুল ইসলাম, আতিয়ার মেম্বার, খলিলুর রহমান, অ্যাড এরশাদ আলী, গোলাম সামাদ, মাও ওমর আলী, তোফাজ্জেল হোসেন, আমিনুল ইসলাম, জিল্লুর রহমান, রিপন, যুবদলের দর্শনা পৌর যুবদলের সভাপতি এনামুল হক শাহ মুকুল, যুবদল নেতা মনিরুল ইসলাম, হাসিবুল হোসেন হাসু, জসিম উদ্দিন, বাবলু, কামাল প্রমুখ। দামুড়হুদার ৭টি ইউনিয়ন এলাকার বিএনপি, যুবদল ও ছাত্রদলসহ অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন পৌর যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম চঞ্চল।

আলমডাঙ্গা ব্যুরো জানিয়েছে, গতকাল আলমডাঙ্গা উপজেলা ও পৌর যুবদলের উদ্যোগে এ দিবস উপলক্ষে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। আলমডাঙ্গা কমিউনিটি সেন্টারে অনুষ্ঠিত সভায় পৌর যুবদলের যুগ্মআহ্বায়ক ফারুক হোসেনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন কেন্দ্রীয় যুবদলের সদস্য উপজেলা যুবদলের আহ্বায়ক এমদাদুল হক ডাবু। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা বিএনপির সিনিয়র সহসভাপতি সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল জব্বার বাবলু, পৌর বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ইসরাফ হোসেন, পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আজিজুর রহমান পিন্টু, সাংগঠনিক সম্পাদক রেজাউল ইসলাম, উপজেলা বিএনপির সহসভাপতি ও ইউপি চেয়ারম্যান হাসানুজ্জামান হাসান, প্রকৌশলী রেজাউল করিম, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক মহি উদ্দিন, উপজেলা যুবদলের যুগ্মআহ্বায়ক আনোয়ার হোসেন জালাল, নাসির উদ্দিন প্রমুখ।

অপরদিকে আলমডাঙ্গার বিএনপির অপরাংশের উপজেলা, পৌর ও কলেজ ছাত্রদলের উদ্যোগে হাইরোডস্থ বিএনপি কার্যালয়ে তারেক রহমানের কারামুক্ত দিবস পালন করা হয়েছে। সভাপতিত্ব করেন কলেজ ছাত্রদলের সভাপতি ফাহামিদুর রহমান মুন। প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা বিএনপির সহসভাপতি পৌর মেয়র আলহাজ মীর মহিউদ্দিন। বিশেষ অতিথি ছিলেন ইলিয়াছ আহমেদ, কামরুজ্জামান বকুল, মোসারেফ হোসেন, সাবেক কাউন্সিলর আব্দুল রাজ্জাক। রফিকুল ইসলামের উপস্থাপনায় বক্তব্য রাখেন, মহাবুর হোসেন মেম্বার, মীর আসাদুজ্জামান উজ্জ্বল, মনিরুজ্জামান মনির, হাসানুজ্জামান, ছাত্রনেতা ফারুক, রাজীর আহমেদ প্রমুখ।

মেহেরপুর অফিস জানিয়েছে, এ দিবস উপলক্ষে গতকাল বুধবার মেহেরপুর জেলা যুবদলের আয়োজনে শহরে বিক্ষোভ মিছিলের উদ্যোগ নিলে পুলিশের বাধার মুখে তা পণ্ড হয়। মেহেরপুর জেলা বিএনপির শাহাজীপাড়াস্থ কার্যালয় থেকে জেলা যুবদলের আহ্বায়ক জহুরুল ইসলাম বড়বাবুর নেতৃত্বে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের হলে পুলিশ তাতে বাধা দেয়। ওই সময় জেলা যুবদল নেতাকর্মীরা জেলা বিএনপির শাহাজীপাড়াস্থ কার্যালয়ে এক সমাবেশে মিলিত হয়। সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন জেলা যুবদলের আহ্বায়ক জহুরুল ইসলাম বড় বাবু। সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির যুগ্মআহ্বায়ক আনছার-উল হক। বিশেষ অতিথি ছিলেন বিএনপি নেতা কর্ণেল (অবঃ) সামসুল ইসলাম সামস ও জেলা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক ইসলাম আলী মাস্টার। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জেলা যুবদলের যুগ্মআহ্বায়ক প্রভাষক ফয়েজ মোহাম্মদ, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের ১ নং যুগ্মআহ্বায়ক মো. মোস্তাকিম, সদর থানা যুবদলের সভাপতি হাসিবুজ্জামান স্বপন, প্রমুখ।

গাংনী প্রতিনিধি জানিয়েছেন, মেহেরপুর জেলা বিএনপি সভাপতি ও মেহেরপুর-২ (গাংনী) আসনের সংসদ সদস্য আমজাদ হোসেন বলেছেন, মুল দলের সহায়ক শক্তি হিসেবে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে ছাত্রদল। তাই দেশের বর্তমান সঙ্কট কাটাতে ছাত্রদলকে অগ্রনী ভূমিকা পালন করতে হবে। বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমান ছাত্রদলকে সে পথ দেখিয়েছিলেন। তারুণ্যের অহঙ্কার তারেক রহমান এদেশের জাগ্রত যুবকের প্রাণের স্পন্দন। গতকাল বুধবার সকালে মেহেরপুর গাংনী উপজেলা বিএনপি কার্যালয়ে ছাত্রদল আয়োজিত তারেক রহমানের কারামুক্তি দিবসের আলোচনাসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। সভাপতিত্ব করেন উপজেলা ছাত্রদলের সহসভাপতি কামরুল ইসলাম। বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা বিএনপির সহসভাপতি আব্দুর রাজ্জাক, জেলা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক আব্দাল হক, গাংনী পৌর বিএনপি সভাপতি ইনসারুল ইসলাম ইন্সু, উপজেলা যুবদলের সভাপতি আক্তারুজামান, সাধারণ সম্পাদক সাজেদুল ইসলাম বুলবুল।

ঝিনাইদহ অফিস জানিয়েছে, এ দিবস উপলক্ষে ঝিনাইদহে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে যুবদল। কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে জেলা যুবদল বুধবার সকাল ১১টার দিকে শহরের এইচএসএস সড়ক থেকে বিক্ষোভ মিছিল শুরু করে। শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে কেপি বসু সড়কে জেলা বিএনপি কার্যালয় চত্বরে গিয়ে মিছিলটি শেষ হয়। পরে সেখানে সমাবেশ করে যুবদল নেতাকর্মীরা। জেলা যুবদলের আহবায়ক রওশন বিন কদরের সভাপতিত্বে সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক মসিউর রহমান। বক্তব্য রাখেন জেলা যুবদলের যুগ্মআহবায়ক আহসান হাবিব রনক, মিজানুর রহমান সুজন, মীর ফজলে এলাহী, যুবদল নেতা রোকনুজ্জামান, মাহফুজুর রহমান ইপিয়ার, ইমরান হায়দার রাজা, শহিদুল ইসলাম মিঠু, কামাল হোসেন প্রমুখ।

সমাবেশে কেন্দ্রীয় বিএনপি নেতা মসিউর রহমান বলেন, নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচন হলে আওয়ামী লীগের কোনো অস্তিত্ব থাকবে না। নিজেদের দুর্নীতি, অপকর্ম ও দুঃশাসনের কারণে শেখ হাসিনা নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে ভয় পাচ্ছেন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *