জীবননগর জুড়ে সাজ সাজ রব : স্বপ্নের দৌলৎগঞ্জ স্থলবন্দরের ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপন হচ্ছে কাল

জীবননগর ব্যুরো: আগামীকাল শনিবার চুয়াডাঙ্গা জেলাবাসীর দীর্ঘদিনের স্বপ্ন একধাপ পূরণ হতে যাচ্ছে। বাংলাদেশের পক্ষ থেকে দৌলৎগঞ্জ স্থলবন্দরের ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপন ও উদ্বোধন করা হচ্ছে। নৌ-পরিবহন মন্ত্রাণালয়ের মন্ত্রী শাজাহান খান প্রধান অতিথি হিসেবে এ স্থলবন্দরের ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপন করবেন। এ উপলক্ষে জীবননগর উপজেলা জুড়ে সাজরব পড়ে গেছে। মন্ত্রী ও এমপিকে স্বাগত জানিয়ে সড়ক ও মহাসড়কজুড়ে বিপুল পরিমাণ গেট ও তোরণ নির্মাণ করা হয়েছে। টানানো হয়েছে ব্যানার ও ফেস্টুন।

১৯৯৩ সালে দৌলৎগঞ্জ-মাঝাদিয়া শুল্ক স্টেশন চালুর দাবিতে আন্দোলন শুরু করা হয়। দীর্ঘ ২০ বছর পর গত ৩১ জুলাই সরকার এটিকে স্থলবন্দর হিসেবে ঘোষণা প্রদান করে। ঘোষণার পর কেবলমাত্র বাংলাদেশের পক্ষ থেকে এটির উদ্বোধনের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। আগামীকাল শনিবার বিকেলে নৌ-পরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খান প্রধান অতিথি হিসেবে এ বন্দরের ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপন করবেন। চুয়াডাঙ্গা-১ আসনের সংসদ সদস্য সোলাইমান হক জোয়ার্দ্দার ছেলুন, চুয়াডাঙ্গা-২ আসনের সংসদ সদস্য আলী আজগার টগর, ঝিনাইদহ-৩ আসনের সংসদ সদস্য অ্যাড. শফিকুল আযম খাঁন চঞ্চল ও স্থলবন্দর কর্তৃপক্ষের চেয়াম্যান মোয়েজ্জদ্দীন আহম্মেদ ভিত্তিপ্রস্থর অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন।

উল্লেখ্য, আগামীকাল দৌলৎগঞ্জ স্থলবন্দরের ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপন ও উদ্বোধন করা হলেও একই সময়ে ভারতীয় অংশে মাঝদিয়া স্থলবন্দরের কোনো উদ্বোধন হচ্ছে না। এ উদ্বোধনের ফলে এ স্থলবন্দরের কার্যক্রমও এখনই চালু হচ্ছে না। ভারতীয় সরকারের অনুমোদন মিললে উভয় দেশ যৌথভাবে এ স্থলবন্দরের উদ্বোধন করার পর এ স্থলবন্দরের কার্যক্রম পূর্ণাঙ্গভাবে চালু হবে বলে আশা করা হচ্ছে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *