২৫ অক্টোবর গাংনীতে বিএনপি-আওয়ামী লীগের কর্মসূচি : উত্তেজনা

0
35

মাজেদুল হক মানিক: আগামী ২৫ অক্টোবর বিএনপির কর্মসূচি ও আওয়ামী লীগের পাল্টা কর্মসূচি ঘিরে মেহেরপুরের গাংনীর জনমনে বিরাজ করছে উদ্বেগ উৎকণ্ঠা। কেন্দ্রীয় কর্মসূচি সফল করতে সব প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে বিএনপি। আর নাশকতা হলে তার প্রতিরোধের কথা বলে মাঠে থাকছে আওয়ামী লীগ। উভয় দলের নেতাকর্মীরা এদিনটিকে অস্তিত্ব রক্ষার লড়াই হিসেবে দেখছেন।

বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর রাজপথে আন্দোলন সংগ্রামের কর্মসূচি বাস্তবায়নে কিছুটা নমনীয়তা দেখিয়েছে বিএনপি। গাংনী উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান বাবলু এমনটি জানিয়ে বলেছেন, ক্ষমতাসীন দলের লোকজন কর্তৃক বিএনপির দলীয় কার্যালয়ে হামলা ও সভা সমাবেশে পুলিশ কয়েক দফা বাধা দিলেও অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে বিএনপি শান্তিপূর্ণ অবস্থান নিয়েছে সব সময়। কিন্তু এবার তা হবে না। আঘাত এলেই পাল্টা আঘাত করা হবে। ২৫ অক্টোবরের কর্মসূচি পালনে পুলিশের নিরপেক্ষ ভূমিকা পালনের অনুরোধ করেছেন বিএনপির এ নেতা।

এদিকে একদলীয় নির্বাচন প্রতিরোধে কেন্দ্রের নির্দেশনা অনুসারে গ্রামে গ্রামে প্রতিরোধ কমিটি গঠন সম্পন্ন করেছে বিএনপি। ১৮ দলীয় জোটের শরিক দলের বিশেষ করে জামায়াতের নেতাকর্মীরাও রয়েছেন এ কমিটিতে। মেহেরপুর জেলা বিএনপি সভাপতি মেহেরপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য আমজাদ হোসেন বলেছেন, গণতান্ত্রিক অধিকারের ভিত্তিতেই শান্তিপূর্ণভাবেই ২৫ তারিখের কর্মসূচি পালন করা হবে।

এদিকে বিএনপি নেতাকর্মীদের মতোই বিভিন্ন স্থানে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের প্রস্তুতি চলছে। ২৫ অক্টোবর গাংনী শহরে বিক্ষোভ সমাবেশসহ বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করা হবে বলে জানিয়েছেন গাংনী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সাহিদুজ্জামান খোকন। তিনি জানিয়েছেন, যেহেতু বিএনপি ঘোষণা দিয়েছে দা, কুড়াল নিয়ে রাজপথে নামবে তাই জনগণের জানমালের নিরাপত্তার জন্যই আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা রাজপথে থাকবে। বিশৃঙ্খলা করলেই তার প্রতিরোধ করা হবে। জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মোকলেছুর রহমান মুকুল জানিয়েছেন, বিরোধী দলের এ কর্মসূচি রাজনৈতিকভাবে মোকাবেলা করা হবে। তবে গাংনী পৌর মেয়র  আওয়ামী লীগ নেতা আহম্মেদ আলী জানিয়েছেন, ২১ অক্টোবর তথা আজ সোমবার প্রস্তুতি সভা আহ্বান করা হয়েছে। ওই সভা থেকেই বিরোধীদলের সহিংস কর্মসূচি প্রতিরোধে বিভিন্ন কৌশল নির্ধারণ করা হবে।

গেলো কয়েক দিন ধরে গাংনী উপজেলার বিভিন্ন প্রান্তে বিএনপি ও আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা গণসংযোগসহ প্রস্তুতিসভা করেছেন। গ্রামে গ্রামে প্রতিরোধের পাশাপাশি গাংনী শহরে বড় ধরনের শো-ডাউন করার চিন্তা করছেন উভয় দলের নেতারা। বিগত দিনে বিএনপি ও আওয়ামী লীগে কোন্দল থাকলেও নেতাকর্মীদের এখন একটাই লক্ষ্য যেকোনোভাবে ২৫ অক্টোবরের কর্মসূচি সফল করতে হবে। জেলা বিএনপির সহসভাপতি জাভেদ মাসুদ মিল্টন পক্ষের নেতাকর্মীরাও মাঠে থাকবে বলে জানা গেছে। চলছে প্রস্তুতি। এদিন ক্ষমতাসীন দল ও বিরোধীদল বিএনপির নেতাকর্মীরা গাংনী শহরে কর্মসূচি পালনের লক্ষ্য নিয়ে প্রস্তুত হচ্ছে। শহরে কর্মসূচি পালন করা তাদের বড় সফলতা বলে মনে করছেন উভয় দলের নেতারা। বিএনপির কর্মসূচি আর আওয়ামী লীগের প্রতিরোধ। এতে জনমনে বিরাজ করছে চরম আতঙ্ক। কী হবে ২৫ অক্টোবর? এমন আলোচনা এখন সবখানে। তবে গাংনী থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাছুদুল আলম জানিয়েছেন, উভয় দলের কর্মসূচি ঘিরে অপ্রীতিকর ঘটনার আশঙ্কা ধরেই তা প্রতিরোধে মানসিকভাবে প্রস্তুত রয়েছে পুলিশ। যেকোনোভাবে বিশৃঙ্খলা মোকাবেলা করা হবে বরেও জানিয়েছেন তিনি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here