হালসায় চলন্ত ট্রেনে পাথর নিক্ষেপ : চুয়াডাঙ্গার দুজনসহ চারজনের কারাদণ্ড

বখাটে যুবকদের ছোঁড়া পাথরে ট্রেনচালক আহত : ট্রেন যোগাযোগ কয়েক ঘণ্টা বিছিন্ন

স্টাফ রিপোর্টার: কুষ্টিয়ায় বখাটে যুবকদের ছোঁড়া পাথরের আঘাতে ট্রেনচালক আহতের ঘটনায় আটক চার যুবককে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। গতকাল বুধবার বিকেল সাড়ে পাঁচটার দিকে মিরপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক আজাদ জাহান এ আদেশ দেন।

এর মধ্যে তিনজনকে দু বছর করে এবং একজনকে ছয় মাসের কারাদণ্ডাদেশ দেয়া হয়েছে। দণ্ডাদেশপ্রাপ্ত চার যুবক হলো- চুয়াডাঙ্গা জেলার আলমডাঙ্গা উপজেলার রমজান আলীর ছেলে হুসাইন কবির (২০), পাবনার ঈশ্বরদী উপজেলার রূপপুর এলাকার আনিসুর হকের ছেলে নাঈম হক প্লাবন (১৮), কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা উপজেলার চর দামুকদিয়া গ্রামের হাবিবুর রহমানের ছেলে নাজমুল রহমান ( ১৮) ও চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা থানার পাটাচোরা গ্রামের ওসমান গনির ছেলে আলী হোসেন (২৩)।

2nd 4

ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক ইউএনও আজাদ জাহান জানান, অভিযোগ প্রমাণ হওয়ায় হুসাইন কবির, নাঈম হক ও নাজমুল রহমানকে দু বছরের সশ্রম কারাদণ্ড এবং আলী হোসেনকে ছয় মাসের জেল দেয়া হয়েছে। পোড়াদহ স্টেশন মাস্টার শরিফুল ইসলাম জানান, ঈশ্বরদী থেকে ছেড়ে আসা রূপসা এক্সপ্রেসটি হালসা স্টেশন অতিক্রম করার সময় গোয়ালন্দগামী একটি সাটল ট্রেন সেখানে অপেক্ষমান ছিলো। রূপসা ট্রেনটি আসতে কিছুটা বিলম্ব হওয়ায় যাত্রীরা ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে। ট্রেনটি যখন হালসা স্টেশন অতিক্রম করছিলো তখন বাইরে দাঁড়িয়ে থাকা ৪/৫ জন যুবক চালককে লক্ষ্য করে পাথর ছুড়ে মারে। এতে চালক আহত হন। অভিযুক্ত যাত্রীদের সবাই গোয়ালন্দগামী ট্রেনের যাত্রী।

Leave a comment

Your email address will not be published.