সরকারি হজ গাইড নিয়োগে আবেদনপত্র আহ্বান

স্টাফ রিপোর্টার: সরকারি ব্যবস্থাপনায় হজযাত্রীদের সার্বিক সহায়তা ও সেবা দিতে হজ গাইড নিয়োগ দেবে সরকার। এ লক্ষ্যে আবেদনপত্র আহ্বান করেছে ধর্ম মন্ত্রণালয়। বিদ্যমান হজ নীতিমালা অনুযায়ী প্রতি ৪৫ জন হজযাত্রীর জন্য একজন করে হজ গাইড নিয়োগ দেয়ার কথা। গাইড হিসেবে নিয়োগ প্রত্যাশীদের আগামী ১৫ মার্চের মধ্যে জেলা প্রশাসক ও সভাপতি, জেলা হজ গাইড নির্বাচন কমিটি বরাবর প্রয়োজনীয় তথ্য-উপাত্ত জমা দেয়ার নির্দেশ জারি করেছে ধর্ম মন্ত্রণালয়। গত ৪ মার্চ ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সহকারী সচিব (হজ ১) এসএম মনিরুজ্জামান স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়।
আবেদনকারীদের ৪৫ জন হজযাত্রী সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট হজযাত্রী সংগ্রহের প্রমাণ হিসেবে পাসপোর্ট কিংবা জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপি দাখিল করতে হবে। আবেদনকারীকে একজন দক্ষ হজ গাইড ও অনধিক ৫৫ বছরের গ্র্যাজুয়েট/কামিল/ফাজিল/দাওরায়ে হাদিস/কুরআনে হাফেজ/মসজিদের ইমাম হতে হবে। ধর্ম মন্ত্রণালয় ও এর আওতাধীন সংস্থা/প্রকল্পে কর্মরত গ্র্যাজুয়েট/কামিল/ফাজিল/দাওরায়ে হাদিস হতে হবে। আবেদনকারীকে উত্তম চরিত্রের অধিকারী বাংলাদেশি মুসলমান হওয়ার পাশাশাশি হজের সব নিয়ম-কানুন জানতে হবে। এজেন্সির মালিক/অংশীদার, মোয়াজ্জেম হজ গাইড হতে পারবেন না। একজন দক্ষ গাইড হিসেবে তাদের জেলা হজ গাইড নির্বাচন কমিটির সুপারিশ থাকতে হবে।
সরকার কর্তৃক মনোনীত গাইডকে ধর্ম মন্ত্রণালয় ও কাউন্সিল হজের তত্ত্বাবধানে সৌদি আরবে দায়িত্বপালন করতে হবে। এছাড়া হজ ও ওমরাহ নীতি ও হজযাত্রীদের জন্য হজ গাইড ব্যবস্থাপনা-সংক্রান্ত গাইড লাইনসহ ধর্ম মন্ত্রণালয় কর্তৃক সময়ে সময়ে জারিকৃত নির্দেশনা পালন করতে হবে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *