মেহেরপুর পল্লী বিদ্যুত সমিতির কর্মকর্তা লাঞ্ছিত : মুচলেকা দিয়ে যুবক মুক্ত

 

মেহেরপুর অফিস: মেহেরপুর পল্লী বিদ্যুত সমিতির এক কর্মকর্তাকে রাজু আহম্মেদ মিন্টু নামের এক যুবক লাঞ্ছিত করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। মেহেরপুর পল্লী বিদ্যুত সমিতির অফিসেই অকথ্য ভাষায় গালাগালিসহ লাঞ্ছিত করা হয় ওই কর্মকর্তাকে। অভিযুক্ত রাজু আহম্মেদ মিন্টুকে সমিতির কর্মকর্তা-কর্মচারীরা আটক করে পুলিশের হাতে তুলে দিলে মুচলেকা দিয়ে তাকে ছাড়িয়ে আনা হয়। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরের দিকে ওই ঘটনা ঘটে।

পল্লী বিদ্যুত সমিতির সহকারী জেনারেল ম্যানেজার (এমএস) রেজাউল করিমের অভিযোগ, গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে যুবলীগকর্মী মিন্টু অফিসে গিয়ে একটি কাজ করে দেয়ার কথা বলে। ওই সময় তিনি কম্পিউটারে ভোটার তালিকা প্রকাশের জরুরি কাজ করছিলেন। মিন্টুকে আধা ঘণ্টা অপেক্ষা করার কথা বললে মিন্টু ক্ষিপ্ত হয়ে কম্পিউটারের কাজ রেখে তার কাজ আগে করে দেয়ার জন্য চাপ দেয়। এ নিয়ে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে অকথ্য ভাষায় গালাগালিসহ মারতে উদ্যত হয় মিন্টু। ওই সময় অফিসের স্টাফরা ছুটে গিয়ে তাকে আটক করেন।

সমিতির সহকারী জেনারেল ম্যানেজার (নিপর) রবিউল ইসলাম জানান, মিন্টু মূলত একজন দালাল। সে বিদ্যুত সংযোগের ব্যবস্থা করে দেয়ার নাম করে বিভিন্ন গ্রাহকের কাছ থেকে টাকা নিয়ে থাকে। ওই দিন অফিসে এসে সে মাস্তানি করছিলো। র‌্যাব ও পুলিশকে ডেকে ধরিয়ে দিলে জেলা যুবলীগের নেতারা তাকে মুচলেকা দিয়ে ছাড়িয়ে নিয়ে যায়। মিন্টু শহরের দীঘিরপাড়ার সাবেক ইউপি সদস্য আব্দুল গণির ছেলে। এ ঘটনায় জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদুল আলম সাজ্জাদ জানান, মিন্টু যুবলীগের কেউ নয়। শুধুমাত্র জামিনদার হয়ে তাকে ছাড়িয়ে আনা হয়েছে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *