মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস ঐতিহ্যকে রক্ষা করতে আওয়ামী লীগ সরকারের বিকল্প নেই

চুয়াডাঙ্গায় মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্সের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন ও নির্মাণ কাজের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে হুইপ ছেলুন জোয়ার্দ্দার

স্টাফ রিপোর্টার: হুইপ ছেলুন জোয়ার্দ্দার এমপি বলেছেন, বর্তমান সরকার মুক্তিযোদ্ধাদের বিভিন্নভাবে সম্মানিত করছে। এ সরকার ক্ষমতায় এসেই মুক্তিযোদ্ধাদের ভাতাসহ অন্যান্য সুবিধাদি বাড়িয়েছে। মুক্তিযোদ্ধারা তাদের ন্যায্য সম্মান পাচ্ছেন। শেষ বয়সে তাদের কারো উপর নির্ভর করতে হচ্ছেনা। তিনি গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে চুয়াডাঙ্গার এতিমখানাপাড়ায় সদর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্সের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন ও নির্মাণ কাজের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্ত্যব রাখছিলেন। এ সময় হুইপ ছেলুন জোয়ার্দ্দার এমপি আরও বলেন, প্রতিটি উপজেলায় মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স নির্মাণ করছে সরকার। যারা মুক্তিযুদ্ধের বিপক্ষে তারা ক্ষমতায় এলে এর বিপরীত ঘটায়। তাই মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস ঐতিহ্যকে রক্ষা করতে আওয়ামী লীগ সরকারের বিকল্প নেই।
গতকাল বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় চুয়াডাঙ্গা পৌর এলাকার এতিমখানাপাড়ায় ভবন নির্মাণ কাজের উদ্ভোধন করেন জাতীয় সংসদের হুইপ সোলায়মান হক জোয়ার্দ্দার ছেলুন এমপি। চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স ভবন নির্মাণে ব্যয় ধরা হয়েছে ১ কোটি ৭৭ লাখ টাকা। ৩ হাজার ৬শ স্কয়ার ফুট এ ভবনে প্রথম-দ্বিতীয় তলায় থাকবে মার্কেট। তৃতীয় তলায় তৈরি হবে কনফারেন্স রুম। আগামী বছরের ৮ জুন ভবন নির্মাণ কাজ শেষ হবে। চুয়াডাঙ্গা পৌর এলাকার ঝিনাইদহ বাসস্ট্যান্ডপাড়ায় এতিমখানা রোডে পানি উন্নয়ন বোর্ডের পরিত্যাক্ত গোডাউনসহ রয়েছে ৮-১০ বিঘা জমি। এই জমির এক প্রান্তে তৈরি করা হচ্ছে উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স ভবন। তবে ভবনসহ মার্কেট নির্মাণ নিয়ে শুরুতে দেখা দিয়েছে নানা প্রশ্ন। শহরের এক কর্ণারে এখানে কিভাবে চলবে মার্কেট। এতো টাকা ব্যয়ে কেনই বা করা হচ্ছে এখানে ভবনসহ মার্কেট।
এর আগে জাতীয় সংসদের হুইপ সোলায়মান হক ছেলুন এমপি নির্মিতস্থানে এসে পৌঁছুলে বীর মুক্তিযোদ্ধা সদস্যরা তাকে স্বাগত জানান। পরে তিনি ফলক উন্মোচন ও কোদাল দিয়ে মাটি কেটে ভবন নির্মাণ কাজের উদ্ভোধন করেন। এরপর মুক্তিযুদ্ধে শহিদের আত্মার মাগফেরাত কামনায় দোয়া অনুষ্ঠিত হয়। দোয়া পরিচালনা করেন জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মাসুদউজ্জামান লিটু বিশ্বাস।
ভবন নির্মাণ উপলক্ষে আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মৃনাল কান্তি দে। প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন জাতীয় সংসদের হুইপ সোলায়ামান হক জোয়ার্দ্দার ছেলুন এমপি। সদর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আব্দুস শুকুর বাঙ্গালীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন সাবেক জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার নুরুল ইসলাম মালিক, আবু হোসেন, এলজিইডির নির্বাহী প্রকৌশলী আশরাফুজ্জামান, সাবেক যুদ্ধকালিন কমান্ডার হাফিজুর রহমান জোয়ার্দ্দার প্রমুখ।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *