পাকিস্তানে ফরাসি কনস্যুলেটের সামনে বিক্ষোভ-সংঘর্ষ

মাথাভাঙ্গা মনিটর: ফ্রান্সের বিদ্রুপ ম্যাগাজিন শার্লি এবদুতে ইসলামকে ব্যাঙ্গ করে প্রকাশিত কার্টুনের বিরুদ্ধে পাকিস্তানের করাচিতে ফরাসি কনস্যুলেটের বাইরে প্রায় ২শ বিক্ষোভকারীর সাথে সংঘর্ষে জড়িয়েছে পুলিশ। গতকাল শুক্রবারের এ বিক্ষোভ-সংঘর্ষে ৩ জন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এর মধ্যে একজনের অবস্থা গুরুতর বলে জানিয়েছেন করাচির একজন চিকিৎসক। পাকিস্তানের ধর্মভিত্তিক রাজনৈতিক দল জামাত-ই-ইসলামের ডাকে জুম্মার নামাজের পরেই এ প্রতিবাদ বিক্ষোভ হয়। বিক্ষোভকারীদের কারো কারো হাতে অস্ত্র ছিলো এবং নিরাপত্তা বাহিনীর ছোড়া জলকামান এবং টিয়ারগ্যাসের জবাবে তারা গুলি ছোড়ে। এর আগে বৃহস্পতিবার পাকিস্তানের রাজনীতিবিদদের পক্ষ থেকে শার্লি এবদুর সর্বশেষ সংখ্যায় মহানবী (সা.) কে নিয়ে প্রকাশিত কার্টুনের নিন্দা জানানো হয়। শুক্রবার প্রতিবাদকারীদের একটি দল করাচিতে ফরাসি কনস্যুলেটে ঢোকার চেষ্টা করলে পুলিশ তাদের বাধা দেয়। এ সময় সংঘর্ষে অন্তত তিনজন আহত হলে তাদেরকে হাসপাতালে নেয়া হয়। বিক্ষোভকারীরা বলছেন, তারা কনস্যুলেটের কর্মকর্তাদের কাছে লিখিতভাবে প্রতিবাদ জানাতে চেয়েছিলেন। কিন্তু পুলিশ কনস্যুলেটের প্রধান ফটকের কাছেই তাদের আটকে দেয়। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, প্রতিবাদকারীদের আটকাতে পুলিশ লাঠিপেটা করে। এছাড়া জলকামান ও টিয়ার-গ্যাসের শেলও ব্যবহার করা হয়েছে। কেউ কেউ গুলির শব্দ পাওয়ার কথাও বলেছেন। তবে বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। এক সপ্তা আগে প্যারিসে শার্লি এবদুর কার্যালয়ে জঙ্গি হামলায় ১২ জন নিহত হন। পরবর্তী দু দিনে জঙ্গিদের হামলায় প্যারিসে একজন নারী পুলিশসহ আরও পাঁচজন প্রাণ হারায়। পরে পুলিশের গুলিতে নিহত হয় তিন জঙ্গি।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *