নিহত গৃহবধূ সোনিয়ার লাশের ময়নাতদন্ত শেষে জয়রামপুরে দাফন সম্পন্ন

0
31

আত্মহত্যার প্ররোচণায় মামলা : শ্বশুর জেলহাজতে

 

দামুড়হুদা প্রতিনিধি: দামুড়হুদার কোমরপুরের নিহত গৃহবধূ সোনিয়ার লাশের ময়নাতদন্ত শেষে পিতার বাড়ি জয়রামপুর চৌধুরীপাড়ায় দাফন সম্পন্ন করা হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার বাদ আসর জানাজা শেষে তার দাফন সম্পন্ন করা হয়।

এদিকে মেয়ে সোনিয়াকে মারপিটের পর বিষপান করতে বাধ্য করায় পিতা নুর ইসলাম বাদী হয়ে নিহতের পাষণ্ড স্বামী ইয়াছিন, শ্বশুর নুর ইসলাম, চাচাশ্বশুর শফি ও বড় ননদ হাজেরাকে আসামি করে দামুড়হুদা মডেল থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। থানা পুলিশ রাতেই নিহত গৃহবধূর শ্বশুর নুর ইসলাম ও শাশুড়ি জহুরা খাতুনকে আটক করে থানা হাজতে নেয়। আটক নিহতের শাশুড়ির নামে মামলা না করায় তাকে জিম্মায় ছেড়ে দিলেও শ্বশুর নুর ইসলামকে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে বলে জানান মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই এমদাদ হোসেন। ঘটনার পর থেকেই স্বামী ইয়াছিন আত্মগোপন করেছে বলে জানা গেছে।

উল্লেখ্য, গত সোমবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলার কোমরপুর গ্রামের নুর ইসলামের ছেলে ইয়াছিন ও তার পরিবারের লোকজন গৃহবধূ এক সন্তানের জননী সোনিয়াকে পিটিয়ে আহত করে। গৃহবধূ সোনিয়া মারপিটের যন্ত্রণা সহ্য করতে না পেরে বিষপান করতে বাধ্য হয়। বেলা ১১টার দিকে সোনিয়া তার শ্বশুরালয়ে বিষপান করলে তাকে মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধার করে দামুড়হুদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হয় এবং সে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায়। এ ঘটনায় নিহতের পিতা চারজনকে আসামি করে থানায় মামলা দায়ের করে। থানা পুলিশ গতকাল মঙ্গলবার সকালে নিহত সোনিয়ার মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য জেলা সদর হাসপাতালমর্গে পাঠায়। ময়নাতদন্ত শেষে গতকাল মঙ্গলবার বাদ আসর পিতার বাড়ি জয়রামপুর চৌধুরীপাড়ার কবরস্থানে তার দাফন সম্পন্ন করা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here