দামুড়হুদায় বাল্যবিয়ের আয়োজন : ভ্রাম্যমাণ আদালতে বর ও কনের পিতার কারাদণ্ড

 

দামুড়হুদা প্রতিনিধি: দামুড়হুদায় বাল্যবিয়ের আয়োজন করায় বর ও কনের পিতার কারাদণ্ড প্রদান করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক। গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আব্দুল হালিম ওই ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন।

ভ্রাম্যমাণ আদালতসূত্রে জানা গেছে, চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার নতিপোতা ইউনিয়নের কালিয়াবকরি গ্রামের জহুরুল ইসলামের ছেলে আক্কাস (২২) দুটি মাইক্রোযোগে ১০/১৫ জনকে সাথে নিয়ে গতকাল সন্ধ্যায় বিয়ের উদ্দেশে কনে দেখতে আসেন একই উপজেলার দামুড়হুদা সদর ইউনিয়নের নাপিতখালী গ্রামের ইয়াছিন আলীর মেয়ে সাবিনা খাতুনকে (১৭)। বাল্যবিয়ে আয়োজনের বিষয়টি আঁচ করতে পেরে নাম প্রকাশ না করার শর্তে ঘটনাটি গোপনে মোবাইলে জানানো হয় দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফরিদুর রহমানকে। তিনি বিষয়টি তাৎক্ষণিকভাবে দামুড়হুদা থানা পুলিশকে জানান। দামুড়হুদা মডেল থানার এএসআই সহিদ সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঝটিকা অভিযান চালান কনের পিতার বাড়ি নাপিতখালী গ্রামে। এর কিছুক্ষণ পর বিয়ে বাড়িতে হাজির হন উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আব্দুল হালিম। তিনি ঘটনার বিস্তারত শোনেন। কনের বয়স কম হওয়ায় বাল্যবিয়ে আয়োজনের অপরাধে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে বর আক্কাসকে ১৫ দিনের এবং কনের পিতা ইয়াছিনকে ৭ দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ডাদেশ দেয়া হয়। ভ্রাম্যমাণ আদালত শেষে কনের পিতা ইয়াছিন ও তার হবু জামাতা আক্কাসকে গতকালই কারাগারে প্রেরণ করে পুলিশ।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *