ঝিনাইদহ সরকারি কেসি কলেজে ক্যাম্পাসে দুটি ককটেল বিস্ফোরণ

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি: আধিপত্য বিস্তার নিয়ে ঝিনাইদহ সরকারি কেসি কলেজে ছাত্রলীগ ও ছাত্রদল নেতাকর্মীদের মাঝে উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। গতকাল রোববার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে কলেজ ক্যাম্পাসে দুটি ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। এতে সাধারণ শিক্ষার্থীদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। ককটেল বিস্ফোরণের প্রতিবাদে শহরে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে ছাত্রলীগ। এ ঘটনার পর কলেজ ক্যাম্পাসে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। তবে কাউকে আটক করতে পারেনি পুলিশ।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, আওয়ামী লীগ সরকারের শাসনামলে এই প্রথম গত শনিবার ছাত্রদল ক্যাম্পাসে মিছিল বের করে। এ নিয়ে ছাত্রদল ও ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। উভয় দলই নিজেদের আধিপত্য বিস্তারের চেষ্টা করে। কেসি কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি রেজওয়ানুল হক রিপন বলেন, সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ৮/১০ জন ছাত্রদলকর্মী ক্যাম্পাসে প্রবেশ করে দুটি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটায়। কলেজে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির জন্য অতর্কিত ককটেল বিস্ফোরণ করা হয়েছে বলে তিনি দাবি করেন। তবে কেসি কলেজ ছাত্রদলের সভাপতি মনিরুজ্জামান মাসুম ছাত্রলীগের এ অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, তাদের কোনো কর্মী ককটেল বিস্ফোরণের এ ঘটনার সাথে জড়িত নয়। ছাত্রলীগ ক্যাডাররা কলেজে সশস্ত্র মিছিল করেছে। আধিপত্য ধরে রাখতে ক্যাম্পাসে আতঙ্ক সৃষ্টি করছে।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে ককটেল বিস্ফোরণের আলামত উদ্ধার করে। সদর থানার এসআই শাহারিয়ার কবির বলেন, কলেজ ক্যাম্পাসে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে ছাত্রদল-ছাত্রলীগ বিরোধে জড়িয়ে পড়েছে। অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে ক্যাম্পাসে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।

এদিকে ককটেল বিস্ফোরণের প্রতিবাদে মিছিল ও সমাবেশ করেছে ছাত্রলীগ। কলেজ ক্যাম্পাস থেকে মিছিলটি শুরু হয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে। মিছিল শেষে কেসি কলেজ শহীদ মিনার চত্বরে সমাবেশ করে ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা। সমাবেশে বক্তব্য রাখেন জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি খাইরুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক বিশ্বজিত সাহা মিথুন প্রমুখ। তবে এ সময় কলেজ ক্যাম্পাসে ছাত্রদল নেতাকর্মীরা ছিলেন না।

 

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *