ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে নতুন দামে মিলছে না ইউরিয়া

কালীগঞ্জ প্রতিনিধি: সরকার ইউরিয়া সারের দাম প্রতি কেজিতে চার টাকা করে কমিয়ে দিলেও ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে খুচরা ব্যবসায়ীরা খোলাবাজারে বেশি দামে সার বিক্রি করছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ কারণে কৃষকেরা কম দামে সার পাচ্ছেন না।

কৃষক ও সারের ডিলাররা জানান, ২৫ আগস্ট কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী ইউরিয়া সারের দাম কেজিপ্রতি চার টাকা করে কমিয়ে দেয়ার ঘোষণা দেন। এ ব্যাপারে গণমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, ঘোষণার দিন থেকেই এ নির্দেশ কার্যকর হবে। ডিলারদের নতুন নির্ধারিত মূল্যে সার বিক্রি করতে হবে; কিন্তু কালীগঞ্জ উপজেলার কোলাবাজার, গাজীরবাজার, বগেরগাছি, নিয়ামতপুর, মহারাজপুর, বালিয়াডাঙ্গা, বারবাজারসহ উপজেলার বিভিন্ন এলাকার হাট-বাজারে আগের দামেই সার বিক্রির অভিযোগ পাওয়া গেছে।

ঘিঘাটি গ্রামের কৃষক শাহজাহান আলী ও বেলেডাঙ্গা গ্রামের কৃষক শফি মিয়া অভিযোগ করেন, খোলাবাজারে খুচরা ব্যবসায়ী ও উপজেলার ১১ জন বিসিআইসি ডিলাররা সিন্ডিকেট করে আগের মূল্যে রাতের অন্ধকারে বাইরের জেলা শহর থেকে চোরাইপথে ট্রাক ট্রাক সার এনে প্রতি কেজি ২০ টাকা দরে ইউরিয়া সার বিক্রি করছেন। তারা বলছেন, নতুন সার না তোলা পর্যন্ত নতুন দাম কার্যকর করা সম্ভব হবে না।

কালীগঞ্জের নাম প্রকাশ না করার শর্তে এক বিসিআইসি ডিলার প্রতিবেদককে জানান, ‘আমাদের আগের কিছু সার মজুত আছে। তাই আগের দামেই সার বিক্রি করা হচ্ছে। তবে আমাদের আর্থিক ক্ষতি হলেও দু-একদিনের মধ্যেই নতুন নির্ধারিত মূল্যে বিক্রি করা হবে।’ ঝিনাইদহ বিসিআইসি সার ডিলার সভাপতি হাজী জাহাঙ্গীর মিয়া জানান, সরকার ঘোষণা দেয়ার পর তারা খুচরা বিক্রেতাদের নতুন দামে সার বিক্রির নির্দেশ দিয়েছেন। যদি কেউ আগের দরে বিক্রি করেন, এ দায়িত্ব তাকেই নিতে হবে।

কালীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) এরাদুল হক বলেন, এ বিষয়ে তার কাছে কেউ লিখিত অভিযোগ দেননি। অভিযোগ পেলে জড়িত ডিলার বা খুচরা বিক্রেতার বিরুদ্ধে মোবাইলকোর্টের মাধ্যমে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া  হবে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *