জীবননগরের সেনেরহুদায় শিক্ষার মানোন্নয়নে অভিভাবক ও সুধী সমাবেশে এমপি টগর

শিক্ষার মাধ্যমে আলোকিত দেশ উপহার দিতে সরকার সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে
এমআর বাবু/সালাউদ্দীন কাজল: আগামী নির্বাচনে আবারও নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে আওয়ামী লীগকে জয়ী করার আহ্বান জানিয়ে চুয়াডাঙ্গা-২ আসনের সংসদ সদস্য হাজি মো. আলী আজগার টগর বলেছেন, মহাজোট সরকার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে পড়ালেখার সুষ্ঠু পরিবেশ তৈরি করে জাতিকে আলোকিত দেশ উপহার দিতে সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। তিনি বলেন, বিএনপি জোট সরকারের আমলে শিক্ষাঙ্গনে সন্ত্রাস, দুর্নীতি ও নৈরাজ্য সৃষ্টির মাধ্যমে শিক্ষা ব্যবস্থাকে ধ্বংস করা হয়েছে। বর্তমান সরকার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে স্বচ্ছ ও দুর্নীতিমুক্ত করতে সক্ষম হয়েছে। তিনি বলেন, শিক্ষার উন্নয়নের মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে জনগণের আশা-আকাক্সক্ষা পূরণ করা। শিক্ষার্থীরা যাতে লেখাপড়া করে এগিয়ে যেতে পারে সেজন্য সরকার বছরের প্রথম দিনই দেশের প্রতিটি স্কুলের ছাত্র-ছাত্রীদের হাতে বই তুলে দিয়েছে। সৃজনশীল পদ্ধতির জন্য সরকার শিক্ষকদের ট্রেনিঙের ব্যবস্থা করায় দেশে শিক্ষার হার বেড়েছে। শেখ হাসিনা শিক্ষাখাতকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়ে দেশকে উন্নয়নের পথে এগিয়ে নেয়ার চেষ্টা করছেন। দেশের উন্নয়ন, দেশকে এগিয়ে নেয়া ও দেশের কলঙ্ক মোচনের জন্য আগামী নির্বাচনেও আওয়ামী লীগকে জয়যুক্ত করুন। আওয়ামী লীগকে আবার দেশ সেবার সুযোগ দিন। গতকাল শনিবার বেলা ১১টার দিকে জীবননগর উপজেলার সেনেরহুদা জান্নাতুল খাদরা দাখিল মাদরাসা চত্বরে শিক্ষার মান উন্নয়নে অভিভাবক ও সুধী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। তিনি আরো বলেন, ২০০৮ সালে আপনারা আমাদের ভোট দিয়েছিলেন। আমরা উন্নয়নের ধারা সূচিত করেছি। আট বছরের উন্নয়নের বর্ণনা দিয়ে তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ দেশের অনেক উন্নয়ন করেছে। বিদ্যুতের উৎপাদন বাড়িয়েছে। শিক্ষক নিয়োগ দিয়েছে। আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পর দেশের খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হয়েছে। বেকার যুবকদের ব্যাপক কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করা হয়েছে। নিঃস্ব-অসহায় মানুষের জন্য আশ্রয়ন প্রকল্প চালু করা হয়েছে। সরকার কৃষকদের জন্য ১০ টাকায় ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খোলার ব্যবস্থা করেছে। তিনি আরও বলেন, ৪৬ বছরে অন্য দেশ এগিয়ে গেলেও বাংলাদেশ পিছিয়ে পড়েছে গণতন্ত্রের ধারাবাহিকতার অভাবে। যাদের নেতৃত্বে দেশ স্ব^াধীন হয়েছে তারা ক্ষমতায় এলেই দেশ এগিয়েছে, আর অন্যরা ক্ষমতায় থাকাকালে সন্ত্রাস, লুটপাট, মানিলন্ডারিং ও জঙ্গিবাদের কারণে দেশ পিছিয়েছে। তিনি বলেন, জামাত-বিএনপি দেশের উন্নয়নের ধারা বাধাগ্রস্ত করতে বিভিন্ন ধরনের ষড়যন্ত্র করে যাচ্ছে। তাদের এ ষড়যন্ত্র রুখতে আমাদেরকে ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে। মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাস রেখে আমাদেরকে ধর্মীয় কুসংস্কার থেকে বেরিয়ে আসতে হবে।
মাদরাসা পরিচালনা পরিষদের সভাপতি আবু জাফরের সভাপতিত্বে এবং সহকারী শিক্ষক মাও. মহিউদ্দিনের উপস্থাপনায় অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন- জীবননগর উপজেলা চেয়ারম্যান আবু মো. আব্দুল লতিফ অমল, জীবননগর পৌর মেয়র জাহাঙ্গীর আলম, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা দীনেশ চন্দ্র পাল, উথলী ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল হান্নান, মাদরাসা সুপারিনটেনডেন্ট শরিফুল ইসলাম, মনোহরপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের পরিচালনা পরিষদের সভাপতি সোহরাব হোসেন খাঁন, মাদরাসা পরিচালনা পরিষদের সদস্য আবুল কালাম আজাদ, ইউপি সদস্য মাহতাব উদ্দীন প্রমুখ। তিনি মাদরাসার জন্য একটি একাডেমিক ভবন, প্রতিটি শ্রেণিকক্ষে ফ্যান দেয়ার ঘোষণা দেন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *