চুয়াডাঙ্গা বাস টার্মিনালে মায়ের দোয়া ব্যাটারি ঘরে অগ্নিকাণ্ড

স্টাফ রিপোর্টার:  চুয়াডাঙ্গা বাস টার্মিনালের পাশে মল্লিক মার্কেটের মায়ের দোয়া ব্যাটারি ঘরে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। অগ্নিকাণ্ডে দোকানের সমস্ত মালামাল পুড়ে আনুমানিক চার লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে। মায়ের দেয়া ব্যাটারি ঘরের মালিক রকি বলেন, প্রতিদিনের মতো গতপরশু মঙ্গলবার রাত ১১টার দিকে দোকান বন্ধ করে বাড়ি যায়। পরদিন অর্থাৎ গতকাল বুধবার সকাল ৬টার দিকে গ্যারেজের আশপাশের লোকজন মোবাইলফোনে খবর দেয় দোকানে আগুন লেগে মালামালসহ সবকিছু পুড়ে শেষ হয়ে গেছে। দ্রুত ঘটনাস্থলে ছুটে যায়। ততোক্ষণে সব শেষ। স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় আগুন নেভানো হলেও অবশিষ্ট কিছুই ছিলো না কাজে লাগার মতো। দোকানের কর্মচারিরা বলে, সকালে দোকান  এসে দেখি ভেতর থেকে ধোঁয়া বেরুচ্ছে। দোকানের তালা ভেঙে স্থানীয় লোকজন মিলে আগুন নিভায়। আগুন নিভানোর আগেই সব পুড়ে ছাই হয়ে গেছে, অবশিষ্ট কিছুই নেই। দোকান মালিক রকি  কান্নায় ভেঙে পড়ে বলেন, ভেতরে যে সমস্ত মালামাল ছিলো তার সবই বিভিন্ন গাড়ির মালিকদের। এখন আমি কি করে এসব মালামাল তাদের বুঝিয়ে দিবো। আমার সব শেষ হয়ে গেলো। আমি রাস্তায় নেমে গেলাম। উক্ত মার্কেটে একজন নৈশপ্রহরী থাকলেও ঘটনার সময় তিনি কোথায় ছিলো, এনিয়ে মার্কেটের অন্যান্য দোকান মালিকদের মনে প্রশ্ন জাগে। নৈশপ্রহরী রেলপাড়ার নজরুল ইসলাম নজু সকালে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছান।  উক্ত মার্কেট কমিটির সভাপতি ওহিদুল ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক ও জেলা বাস-ট্রাক মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক রিপন মণ্ডল অগ্নিকাণ্ডের ঘটনার খবর পেয়ে সেখানে যান এবং অগ্নিকাণ্ডে  ক্ষতিগ্রস্থ দোকান মালিককে শান্তনা দেন। অগ্নিকাণ্ডের কারণ জানা সম্ভব হয়নি।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *