গর্ভধারণ যখন পেশা

মাথাভাঙ্গা মনিটর: জীবিকার তাগিদে মানুষ কত কী-ই না করে। অন্যের সন্তান নিজের গর্ভে ধারণ ও জন্ম দেয়াও যে একটি পেশা হতে পারে, তা আমাদের অনেকের কাছে বিস্ময়ের। অথচ আজকের পৃথিবীর দরিদ্র মানুষ শুধু জীবিকার্জনের জন্য যেসব পেশা বেছে নিচ্ছে, ভাড়াটে মা হওয়া সেগুলোর অন্যতম।

ভাড়াটে মা বা সারোগেট মাদার কার্যত গর্ভ ভাড়া দেয়ার এক পেশা। এক্ষেত্রে একজন নারী গর্ভধারণে অক্ষম অন্য কোনো নারীর ভ্রণ নিজের গর্ভে ধারণ করে সন্তান জন্ম দেন। ভ্রূণ থেকে সন্তান জন্মানো পর্যন্ত মাঝখানের কাজটি সম্পন্ন হয় একজন ভাড়াটে মায়ের গর্ভে।

ভারতের গুজরাটের আনন্দ এলাকার অনেক নারীর কাছে গর্ভ ভাড়া দেয়ার কাজটি এখন পেশায় পরিণত হয়েছে। এ নিয়ে একটি সাময়িকী সম্প্রতি একটি প্রচ্ছদ প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। প্রতিবেদনে বলা হয়, আনন্দের সাত কাইভাল হাসপাতাল অ্যান্ড আকাঙ্ক্ষা ইনফার্টিলিটি ক্লিনিক এখন ভাড়াটে মা বা সারোগেট মায়েদের একটি বড় কেন্দ্রস্থল। হাসপাতালটি পরিচালনা করেন নয়না প্যাটেল (৫৫) ও তার স্বামী হূতেষ (৫৭)। তাদের তত্ত্বাবধানে এখন এ হাসপাতাল থেকে মাসে প্রায় ৩০টি শিশুর জন্ম দেয়া হয়। যে মায়েরা এসব শিশুর জন্ম দেন, তাদের অন্যতম সারোগেট মাদার ফাইভ হানড্রেড বা ৫০০তম ভাড়াটে মা। এ স্বামী পরিত্যক্ত নারীর দুটি সন্তান আছে।

Leave a comment

Your email address will not be published.