ইরাকে গাড়ি বোমা হামলায় নিহত কমপক্ষে ৬০

মাথাভাঙ্গা মনিটর: ইরাকের রাজধানী বাগদাদে ধারাবাহিক গাড়ি বোমা হামলা ও গুলিবর্ষণে কমপক্ষে ৬০ জন নিহত হয়েছে, আহত হয়েছে ৮০ জন। বেশির ভাগ শিয়া অধ্যুষিত এলাকায় এ বোমা হামলা ঘটে। সাম্প্রতিক সময়ে দেশটিতে বিকেল বেলা ক্যাফে কিংবা অন্য কোন জনবহুল এলাকায় বোমা হামলা করার ঘটনা বেড়ে গেছে। এখন পর্যন্ত কোনো দল এ হামলার দায় স্বীকার করেনি। কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, বাগদাদের দক্ষিণে দোরায় বন্দুকধারীর গুলিতে দুজন নিহত হয়েছে। গুলিবর্ষণের রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে রুতরভাবে চারজন আহত হয়েছে। বাগদাগের উত্তরে তালবিয়ার ব্যস্ত রাস্তায় গাড়ি বোমা হামলায় ৯ জন নিহত হয়েছে। রাজধানীর দক্ষিণে হুসাইনিয়ায় দুটি গাড়ি বোমা বিস্ফোরণে নিহত হয়েছে ১০ জন। ২০০৮ সালের পর আবার এ বছরের এপ্রিল থেকে ইরাকে এ ধরনের সহিংসতা বেড়ে গেছে। জাতিসংঘের একটি তথ্যানুযায়ী, দেশটিতে গত পাঁচ মাসে চার হাজার মানুষ নিহত হয়েছে। এর মধ্যে গত আগস্ট মাসে আটশ’রও বেশি মানুষ নিহত হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের সেনা প্রত্যাহারের ১৮ মাস পরেও ইরাকে এ ধরনের সহিংস ঘটনার মাধ্যমে ২০০৬-০৭ সালের জাতিগত সংঘাতের পুনরাবৃত্তি ঘটতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। তখন প্রতিমাসে নিহতের সংখ্যা তিন হাজারও ছাড়িয়ে গিয়েছিলো। বাগদাদের বিভিন্ন স্থানে খুঁজে পাওয়া চারটি লাশ এখনও শনাক্ত করা যায়নি। তাদের প্রত্যেকের চোখ বাঁধা ছিলো এবং হাতে হাতকড়া পরানো ছিলো।

Leave a comment

Your email address will not be published.