অবশেষে খাসকররাবাসীর বহুকাঙ্ক্ষিত পুলিশ ফাঁড়িটি স্থায়ীকরণ করা হয়েছে

স্টাফ রিপোর্টার: অবশেষে খাসকররাবাসীর বহুকাঙ্ক্ষিত পুলিশ ফাঁড়িটি স্থায়ীকরণ করা হয়েছে। এলাকাবাসীর অর্থায়নে শুরু হয়েছে। ফাঁড়ির নিজস্ব জমিতে গতকাল বিকেলে ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করা হয়েছে। চুয়াডাঙ্গা সহকারী পুলিশ সুপার নওশের আলী ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন।

জানা গেছে, চুয়াডাঙ্গা আলমডাঙ্গার পল্লি খাসকররাসহ আশপাশ এলাকায় সন্ত্রাসীরা মাঝে মধ্যেই অতৎপরতা চালায়। অপহরণ, চাঁদাবাজি, ডাকাতিসহ সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড লেগেই থাকে। ২০১১ সালের ১৬ আগস্ট দৈনিক মাথাভাঙ্গায় খাসকররা সংলগ্ন রায়সায় চাঁদাবাজি লেগেই থাকে শিরোনামে একটি সচিত্র প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। এর পরদিনই চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপার দ্রুত পুলিশ ফাঁড়ি স্থাপনের পদক্ষেপ নেন এবং ২২ আগস্ট খাসকররা বাজারে ৯ সদস্যের একটি অস্থায়ী পুলিশ ফাঁড়ি স্থাপন করা হয়। স্থানীয় নেতৃবৃন্দ অনেকেই সশরীরে উপস্থিত হয়ে তাদের স্বাগত জানান। প্রথমে পুলিশ ফাড়িটি পুরাতন ইউপি ভবনে স্থাপন করা হলেও নিরাপত্তার স্বার্থে পরে নতুন ইউপি ভবনের দ্বিতীয়তলায় স্থানান্তর করা হয়। দু বছর পার হলেও তা পুলিশ অজ্ঞাত কারণে স্থায়ীকরণ করা হয়। এলাকায় মাঝে মধ্যেই সন্ত্রাসীরা অতৎপরতা চালাতে থাকে। এলাকাবাসীর অর্থায়নে পুলিশ ফাঁড়ি নির্মাণের উদ্যোগ গ্রহণ করে। গত ১৭ নভেম্বর জেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির মিটিঙে জেলা প্রশাসক খাসকররা পুলিশ ফাঁড়িটি স্থায়ীকরণের ঘোষণা দেন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *