জীবননগর আন্দুলবাড়িয়া ও দামুড়হুদার দলীয় সভায় বাবু খান নির্দলীয় সরকারের দাবি আদায় করেই ঘরে ফিরবো

স্টাফ রিপোর্টার: বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী যুবদলের কেন্দ্রীয় শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক সম্পাদক মাহমুদ হাসান খান বাবু গতকাল জীবননগর, আন্দুলবাড়িয়া ও দামুড়হুদায় দলীয় সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। তিনি বর্তমান সরকারকে গণতন্ত্রকে হত্যাকারী বলে আখ্যা দিয়ে অবিলম্বে পদত্যাগের দাবি জানিয়ে বলেছেন, দেশের মানুস হাস্যকর একতরফা নির্বাচন বর্জন করেছে। নির্দলীয় নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধিনে ছাড়া সাধারণ মানুষের ভোটাধিকার নিশ্চিত হবে না। আমরা বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে আন্দোলনের মাধ্যমে দেশবাসীর দাবি আদায় করেই ঘরে ফিরবো।

            জীবননগর ব্যুরো জানিয়েছে, চলমান রাজনৈতিক আন্দোলনকে আরো বেগবান এবং নির্বাচনকালীন নির্দলীয় সরকারের দাবি আদায়ের লক্ষ্যে গতকাল সোমবার জীবননগর উপজেলা বিএনপির উদ্যোগে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে যুবদল কেন্দ্রীয় কমিটির শিল্প বিষয়ক সম্পাদক বিশিষ্ট শিল্পপতি মাহমুদ হাসান খান বাবু বলেছেন, দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে ১৮ দলীয় জোট নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবিতে দেশে একের পর এক আন্দোলন কর্মসূচি নিয়ে আসছে। এ আন্দোলন এখন বেগবান। তিনি বলেন দুর্বার এ আন্দোলনের মাধ্যমে আমারা আমাদের আন্দোলনের ফসল ঘরে তুলবো। নির্দলীয় সরকারের দাবি আদায় করেই ঘরে ফিরবো ইনশাআল্লাহ্। এছাড়াও তিনি গণতন্ত্রকে স্বৈরাচার এ সরকারের হাত থেকে রক্ষা করতে তিনি ১৮ দলীয় জোটের সকল নেতাকর্মীকে সকল ভেদাভেদ ভুলে ঐক্যবদ্ধভাবে আন্দোলন সংগ্রামে ঝাঁপিয়ে পড়ার জন্য আহ্বান জানান।

উপজেলা বিএনপির সভাপতি আক্তরুজ্জামানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনাসভায় উপজেলা বিএনপির সহসভাপতি জাফর আলী, সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন খাঁন খোকন, সাংগঠনিক সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ, সীমান্ত ইউনিয়ন বিএনপি সভাপতি শাহজাহান আলী, বাঁকা ইউনিয়ন বিএনপি সভাপতি কামাল উদ্দিন সিদ্দিকী, উথলী ইউনিয়ন সাধারণ সম্পাদক সেলিম উদ্দিন, জেলা যুবদলের যুগ্মআহ্বায়ক ইউপি মেম্বার দ্দোজাউদ্দিন, শফিউদ্দিন, সাবেক পৌর কাউন্সিলর আব্দুর রশিদ, ইঊনূছ আলী, জাকির হোসেন, ছাত্রদল নেতা আল ইমরান সুমন, তরিকুল ইসলাম, সাইফুল ইসলাম, আনোয়ার হোসেন, মামুনুর রশিদ প্রমুখ।

            আন্দলবাড়িয়া প্রতিনিধি জানিয়েছেন, নির্দলীয় নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে আগামী ১০ম জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পুনর্তফশিল  ঘোষণা করা না হলে যেকোনো মূল্যে এ পাতানো নির্বাচন প্রতিহত করা হবে। আওয়ামী বাকশালী কায়দায় দলীয় নেতাকর্মীদের ওপর দমনপীড়ন, হত্যা নির্যাতন চালিয়ে এ দেশের জাতীয়তাবাদী শক্তির কণ্ঠরোধ করা যাবে না। দলীয় নেতা-কর্মীদের  আগামী ৫ ফেব্রুয়ারি পাতানো নির্বাচন সর্বাত্মক প্রতিবাদ ও গণপ্রতিরোধ গড়ে তুলে প্রতিহত করার আহ্বান জানান কেন্দ্রীয় যুবদলের শিল্প বিষয়ক সম্পাদক ঢাকাস্থ রাইজিং গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক চুয়াডাঙ্গা-২ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মনোনয়নপ্রত্যাশী মহামুদ হাসান খান বাবু। গতকাল সোমবার সন্ধ্যায় আন্দুলবাড়িয়া ইউনিয়ন বিএনপির অস্থায়ী কার্যলয়ে দলীয় নেতা-কর্মীদের সাথে মহান বিজয় দিবসের শুভেচ্ছা ও মতবিনিময়সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথা বলেন তিনি। জীবননগর উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন খান খোকনের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন বেগমপুর ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান আলী আহম্মদ, আন্দুলবাড়িয়া ইউনিয়ন বিএনপির সাধারণ সম্পাদক সহিদুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক ইউপি সদস্য শেখ হাফিজুর রহমান, ছাত্রদল নেতা মোস্তাফিজুর রহমান সোনা, যুবদল নেতা মির্জ্জা শিলন, সমশের আলী, মোল্লা ফয়েজ, শহিদুল ইসলাম বাচ্চু, সাইদুর রহমান বাবু, লাল মিয়া, রাজন প্রমুখ। সভাশেষে বাবু খান বিভিন্ন এলাকায় গণসংযোগ করেন।

অপরদিকে আন্দুলবাড়িয়া বহুমুখি মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের উদ্যোগে মহান বিজয় দিবস পালিত হয়েছে। সকালে শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ, র‌্যালি, আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় পতাকা উত্তোলন ও আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। প্রধান শিক্ষক আব্দুল মান্নানের সভাপতিত্বে সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারী কল্যাণ সমিতির সভাপতি মহাসিন আলী খান। বিশেষ অতিথি ছিলেন বহুমুখি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সাবেক সভাপতি শেখ আশরাফুজ্জামান টিপু, শিক্ষক মোস্তাফিজুর রহমান সোনা ও শেখ আতিযার রহমান।

            দামুড়হুদা অফিস জানিয়েছে, দামুড়হুদায় জাতীয়তাবাদী যুবদলের কেন্দ্রীয় কমিটির শিল্প বিষয়ক সম্পাদক মাহামুদ হাসান খান বাবুর উপস্থিতিতে উপজেলা বিএনপির মতবিনিময়সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সভায় স্বৈরাচারী সরকারের পতনের জন্য শান্তিপূর্ণ আন্দোলন গড়ে তোলার আহ্বান জানান তিনি। গতকাল সোমবার দুপুর ২টায় উপজেলা শহরের ব্রিজরোডের বিএনপির কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত সভায় দলের নেতাকর্মীদের একযোগে কাজ করার আহ্বান জানিয়ে স্বৈরাচারী ফ্যাঁসিস্ট সরকারকে বিপুল জনরোষের মাধ্যমে পতন ঘটানোর আহ্বান জানান। বক্তব্য রাখেন উপজেলা বিএনপির সহসভাপতি তোফাজ্জেল হোসেন, আন্দুলবাড়িয়া ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি আনোয়ার হোসেন খাঁন খোকন, উপজেলা যুবদল সভাপতি মোকাররম হোসেন, সদর ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি আব্দুর রহমান মালিথা, সাবেক সাধারণ সম্পাদক একরামুল হক, হাউলী ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি আব্দুল ওয়াহেদ, মদনা ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি শফিউল্লাহ্ প্রমুখ।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *