চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালের শিশু ওয়ার্ডে শিশু রোগীর গাদাগাদি

 

১৪ বেডের বিপরীতে রোগীর সংখ্যা ৭৭

কামরুজ্জামান বেল্টু: চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালের শিশু ওয়ার্ডে শিশু রোগীরা গাদাগাদি করে রয়েছে। এ ওয়ার্ডে পা ফেলার জায়গা পর্যন্ত নেই। শিশু ওয়ার্ডের নার্স ও চিকিৎসক রোগী সামলাতে হিমশিম খাচ্ছেন। শিশু ওয়ার্ডে মাত্র ১৪টি বেড থাকলেও গতরাত ১১টায় শিশু রোগীর সংখ্যা ছিলো ৭৭। বেশির ভাগ শিশুই নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত বলে হাসপাতালসূত্রে জানা গেছে।

দীর্ঘদিন ধরে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে ১০০ শয্যার কার্যক্রম চললেও আগের ৫০ শয্যার লোকবল দিয়ে চলছে। ফলে নার্স ও চিকিৎসক ও কর্মচারীদের নাভিশ্বাস ছুটে যাচ্ছে। অনেক সময় দেখা যায় সেবা করতে গিয়ে নার্সরাই অসুস্থ হয়ে পড়েন। নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত সদর হাসপাতালের শিশু বিশেষজ্ঞ ডা. মাহাবুবুর রহমান মিলন ও আসাদুর রহমান মালিক খোকন জানান, শীতের পর আবহওয়া পরিবর্তনের ফলে এ সময় শিশুরা নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হচ্ছে। পুরোপুরি গরম এলে এ অবস্থা দূর হবে।

Leave a comment

Your email address will not be published.