দামুড়হুদায় ভূমি সংক্রান্ত সেবা প্রত্যাশীদের জন্য নির্মিত সেবাকুঠির শ্যামল ছায়ার উদ্বোধন

বখতিয়ার হোসেন বকুল: দামুড়হুদায় ভূমি সংক্রান্ত সেবা প্রত্যাশীদের জন্য নির্মিত সেবাকুঠির শ্যামল ছায়ার উদ্বোধন করা হয়েছে। সেই সাথে ওই দামুড়হুদা উপজেলা ভূমি অফিসকে সম্পূর্ণ দালালমুক্ত একটি অফিস হিসেবে ঘোষণা দেয়ার পাশাপাশি সেবা প্রত্যাশীদের জন্য নির্মিত সেবাকুঠিরটি (গোলঘর) অচিরেই ওয়াই-ফাই জোনের আওতায় আনার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করা হয়েছে।

গতকাল বৃহস্পতিবার বেলা ১২টার দিকে ফলক উন্মোচনসহ ফিতে কেটে ওই সেবাকেন্দ্রের উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক সায়মা ইউনুস। ফলক উন্মোচন শেষে উপজেলা পরিষদ সভাকক্ষে দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. ফরিদুর রহমানের সভাপতিত্বে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক সায়মা ইউনুস। তিনি বলেন, ভূমি অফিস নিয়ে মানুষের আতঙ্ক দূর করতে হবে। এখানে সরকারি খরচে মানুষ দ্রুততম সময়ে সেবা পেতে পারে সে লক্ষ্যে সব ধরনের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। বাকি তিনটি উপজেলায়ও পর্যায়ক্রমে এ ধরনের সেবাকুঠির প্রতিষ্ঠাসহ ওয়াইফাই জোনের আওতায় আনা হবে। তিনি আরও বলেন, অচিরেই ভূমি সংক্রান্ত সকল কার্যক্রম ই-সেবার মাধ্যমে পরিচালিত করা হবে। ফলে সেবা প্রত্যাশীরা দালালদের হাত থেকে রক্ষা পাবে।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন দামুড়হুদা উপজেলা চেয়ারম্যান মাও. আজিজুর রহমান, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আব্দুর রাজ্জাক, দামুড়হুদা মডেল থানার ওসি লিয়াকত হোসেন, আব্দুল ওদুদ শাহ ডিগ্রি কলেজের প্রিন্সিপাল কামাল উদ্দিন, ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল কাদের, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ছালমা জাহান পারুল, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আছির উদ্দিন, জুড়ানপুর ইউপি চেয়ারম্যান ইদ্রিস আলী, নতিপোতা ইউপি চেয়ারম্যান আজিজুল হক আজিজ, কার্পাসডাঙ্গা ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কাশেম, হাউলী ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী শাহ মিন্টু, দামুড়হুদা সদর ইউপি চেয়ারম্যান প্রভাষক শরীফুল আলম মিল্টন, দামুড়হুদা সদর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মহিদুল ইসলামসহ উপজেলার বিভিন্ন দফতরের কর্মকর্তাবৃন্দ। স্বাগত বক্তব্যে উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আ. হালিম দামুড়হুদা উপজেলা ভূমি অফিসকে দালালমুক্ত হিসেবে ঘোষণা করে বলেন, গ্রাহকদের উন্নত ও কাঙ্ক্ষিত সেবার উদ্দেশেই এই সোবকেন্দ্র (গোলঘর) শ্যামল ছায়া নির্মাণ করা হয়েছে। এখানে সকাল ৯টা থেকে বেলা ১১টা পর্যন্ত সেবাপ্রত্যাশীদের বিভিন্ন অভিযোগ ও সমস্যার বিষয়ে তাৎক্ষণিকভাবে পরামর্শ দেয়া হবে এবং সেবাকেন্দ্রটি অচিরেই ওয়াইফাই জোনের আওতায় আনা হবে। এদিকে ২০১৫-১৬ অর্থ বছরে সেরা ভূমিকর আদায়কারী হিসেবে কুড়ুলগাছি ইউনিয়ন ভূমি সহকারী কর্মকর্তা আবুল কাশেম, দামুড়হুদা সদর ইউনিয়ন ভূমি সহকারী কর্মকর্তা ইউনুস আলী ও কার্পাসডাঙ্গা ইউনিয়ন ভূমি সহকারী কর্মকর্তা রনজিত কুমার বিশ্বাসের হাতে সম্মাননাক্রেস্ট তুলে দেন প্রধান অতিথি। পুরস্কারপ্রাপ্তদেরকে একটি করে ক্রেস্ট ও সনদ দেয়া হয়।

উল্লেখ্য, সহকারী কমিশনার (ভূমি) আব্দুল হালিম ২০১৫ সালের ৩ আগস্ট দামুড়হুদা উপজেলা ভূমি অফিসে যোগদান করেন। তিনি যোগদানের পর থেকে ভূমি অফিসকে দালালমুক্ত করার পাশাপাশি ভূমি সংক্রান্ত সেবা প্রত্যাশীদের কাঙ্ক্ষিত সেবা প্রদানের লক্ষ্যে সিটিজেন চার্ট, হেল্পডেক্স তৈরিসহ নানামুখি উদ্যোগ গ্রহণ করেন। তিনি বিগত ৬ মাসে উপজেলায় ৩১টি বিশেষ ক্যাম্প স্থাপনের মাধ্যমে ৮৬ লাখ ৬৬ হাজার টাকা ভূমি উন্নয়ন কর আদায় করেছেন। অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন নাজির হামিদুল ইসলাম।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *