স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে দেশকে এগিয়ে নেয়ার শপথ

চুয়াডাঙ্গা-মেহেরপুর ও ঝিনাইদহসহ সারাদেশে বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত

 

মাথাভাঙ্গা ডেস্ক: বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা নিবেদন, স্মৃতিচারণ, আলোচনাসভা, দোয়া মাহফিল এবং চলমান অবরোধ কর্মসূচিসহ সকল ষড়যন্ত্র ও বাধা প্রতিহত করে দেশকে এগিয়ে নেয়ার অঙ্গীকারের মধ্যদিয়ে যথাযোগ্য মর্যাদায় গতকাল শনিবার সারাদেশে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সকালে ধানমণ্ডির ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘরের সামনে প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণের মাধ্যমে তার প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। পুষ্পস্তবক অর্পণ শেষে প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুর স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধার নিদর্শন হিসেবে কিছু সময় নীরবে দাঁড়িয়ে থাকেন। পরে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দকে সাথে নিয়ে আওয়ামী লীগ সভানেত্রী হিসেবে শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য আমির হোসেন আমু, তোফায়েল আহমেদ, সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত, প্রেসিডিয়াম সদস্য বেগম মতিয়া চৌধুরী, শেখ ফজলুল করিম সেলিম, দলের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল-আলম হানিফ, সাংগঠনিক সম্পাদক আ.ফ.ম বাহাউদ্দিন নাসিম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

বাংলাদেশ স্বাধীনতা অর্জনের পর পাকিস্তানের অন্ধকার কারাগার থেকে মুক্ত হয়ে বঙ্গবন্ধু প্রথমে লন্ডন ও পরে দিল্লি হয়ে ১৯৭২ সালের এদিনে স্বদেশের প্রিয় মাটিতে ফিরে

চুয়াডাঙ্গায় নানা আয়োজনের মধ্যদিয়ে স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত হয়েছে। গতকাল শনিবার সকাল সাড়ে ৬টায় আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ের সামনে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়। এ সময় জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মুন্সি আলমগীর হান্নান ও দলীয় পতাকা উত্তোলন করেন চুয়াডাঙ্গা পৌর মেয়র রিয়াজুল ইসলাম জোয়ার্দ্দার টোটন। পরে আওয়ামী লীগসহ বিভিন্ন সংগঠনের নেতৃবৃন্দ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুস্পমাল্য অর্পণ করেন। এরপর সন্ধ্যা ৬টায় চুয়াডাঙ্গার শহীদ হাসান চত্বরে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে আলোচনাসভা ও সাংস্কৃতি অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় আলোচনা সভায় জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মুন্সি আলমগীর হান্নান তার বক্তৃতায় বলেন, দীর্ঘ সংগ্রাম, ত্যাগ তিতিক্ষা, আন্দোলন ও আত্মত্যাগের নয় মাসের মুক্তি যুদ্ধের বিজয় অর্জনের পর বিধ্বস্ত দেশকে এগিয়ে নেয়ার প্রশ্নটি যখন কঠিন বাস্তবতার মুখোমুখি, তখন পাকিস্তানের বন্ধিদশা থেকে মুক্তি পেয়ে স্বদেশ প্রত্যাবর্তন করেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। পরে বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট জেলা শাখার আয়োজনে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

চুয়াডাঙ্গায় বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে সন্ধ্যায় চুয়াডাঙ্গা শহীদ হাসান চত্বরে আলোচনা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান হয়েছে। গতকাল শনিবার সন্ধ্যায় বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট চুয়াডাঙ্গা জেলা শাখা আয়োজিত আলোচনা সভার সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের সভাপতি মুন্সি জাহাঙ্গীর আলম মান্নান। অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন- চুয়াডাঙ্গা জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মুন্সি আলমগীর হান্নান। অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক পিপি অ্যাড. মহ. শামশুজ্জোহা ও জেলা আওয়ামী লীগের উপপ্রচার সম্পাদক শওকত আলী বিশ্বাস। পরে বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের শিল্পীবৃন্দ সঙ্গীত পরিবেশন করেন।

আলমডাঙ্গা ব্যুরো জানিয়েছে, আলমডাঙ্গায় বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে উপজেলা বঙ্গবন্ধু পরিষদের উদ্যোগে চিত্রাঙ্কন ও বঙ্গবন্ধু শীর্ষক রচনা প্রতিযোগতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। পরে বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বঙ্গবন্ধু পরিষদের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল গনি। প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান হেলাল উদ্দিন। বিশেষ অতিথি ছিলেন বঙ্গবন্ধু পরিষদের সাধারণ সম্পাদক সোনালী ব্যাংক আলমডাঙ্গা শাখার সিনিয়র এক্সিকিউটিভ অফিসার আনোয়ার হোসেন। কলেজিয়েট স্কুলের শিক্ষক শামীম রেজার উপস্থাপনায় অতিথি ছিলেন উপজেলা শিক্ষা অফিসার আবু হাসান, বঙ্গবন্ধু পরিষদের সদস্য দুর্গা চন্দ্র ব্যানার্জী, হায়দার আলী, হাজি মানোয়ার হোসেন মৃধা, জালাল উদ্দিন প্রমুখ।

মেহেরপুর অফিস জানিয়েছে, মেহেরপুর সদর থানা বাস্তুহারা লীগের আয়োজনে বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে মেহেরপুর জেলা বাস্তুহারা লীগের কার্যালয়ে আলোচনাসভার আয়োজন করা হয়। গতকাল শনিবার সন্ধ্যায় আলোচনা অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ বাস্তুহারা লীগ মেহেরপুর সদর থানার সাধারণ সম্পাদক এসএম রাসেল। প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা বাস্তুহারালীগের সাধারণ সম্পাদক মো. ফিরোজ আলী। বিশেষ অতিথি ছিলেন শহর যুবলীগের যুগ্ম সম্পাদক শহিদুজ্জামান সুইট, প্রচার সম্পাদক আব্দুল মতিন, যুগ্ম সম্পাদক মো. শিপন, সাংগঠনিক সম্পাদক মো. শামিম প্রমুখ। অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন মেহেরপুর সদর থানা বাস্তুহারা লীগের সভাপতি সোহেল আহম্মেদ, বুড়িপোতা ইউনিয়নের সভাপতি মো. শহিদ ও সাধারণ সম্পাদক মো. জনি, আমদহ ইউনিয়নের সভাপতি মো. রিপন, সাধারণ সম্পাদক বিপ্লব হোসেন প্রমুখ।

মেহেরপুর অফিস জানিয়েছে, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে মেহেরপুরে গরিব ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে শিক্ষা উপকরণ বিতরণ করা হয়েছে। গতকাল শনিবার সন্ধ্যায় শহরের মণ্ডলপাড়ায় শিক্ষার্থীদের হাতে শিক্ষা উপকরণ তুলে দেন ছাত্রলীগ নেতা তুর্য বিশ্বাস। উপস্থিত ছিলেন শহর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ফেরদৌস শোভন, গাংনী উপজেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি মিজানুর রহমান, যুগ্মসম্পাদক মজিবুর রহমান সবুজ, পিরোজপুর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি নাহিদ হোসেন, বুড়িপোতা ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আল-মামুন, ছাত্রলীগ নেতা বিমান, আব্দুস সলাম বাঁধন, রিপন হাসান প্রমুখ।

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি জানিয়েছেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে ঝিনাইদহে মিছিল ও সমাবেশ করেছে জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতাকর্মীরা। শনিবার দুপুর থেকেই বিভিন্ন এলাকা থেকে খণ্ড খণ্ড মিছিল শহরের পায়রা চত্বরে সমবেত হয়। বিকেলে ঝিনাইদহ শহরের পায়রা চত্বর থেকে আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ঝিনাইদহ পৌরসভার মেয়র সাইদুল করিম মিন্টুর নেতৃত্বে একটি মিছিল বের হয়। মিছিলটি শহরের এইচএস সড়ক ও অগ্নিবীণা সড়ক প্রদিক্ষণ করে। মিছিলে জেলা আওয়ামী লীগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগ ও ছাত্রলীগের কয়েক হাজার নেতাকর্মী অংশ নেন। মিছিল শেষে শহরের পায়রা চত্বরে জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি ঝিনাইদহ জেলা পরিষদ প্রশাসক আবদুল ওয়াহেদ জোয়ারদারের সভাপতিত্বে মাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশে ঝিনাইদহ পৌর মেয়র জেলা আওয়ামী লীগ আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সাইদুল করিম মিন্টু, জেলা আওয়ামী লীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক সাবেক পৌর চেয়ারম্যান আনিছুর রহমান খোকা, সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক অশোক ধর, পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সামাদুল ইসলাম, জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি রবিউল ইসলাম, সহসভাপতি হায়দার আলী, সাংগঠনিক সম্পাদক ওহিদুজ্জামান উজ্জ্বল, সাবেক সভাপতি অহিদুর রহমান খোকন, সাবেক সাধারণ সম্পাদক মতিয়ার রহমান, পৌর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মনিরুজ্জামান ফয়সাল, জেলা বঙ্গবন্ধু পরিষদের সাধারণ সম্পাদক হাফিজুর রহমান, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রানা হামিদ, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবু সুমন বিশ্বাস, দেবাশীষ অধিকারী মানিক বক্তব্য রাখেন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *