সাতক্ষীরা থেকে পালিয়ে আসা দু মাদরাসা ছাত্রকে জীবননগর থেকে উদ্ধার করে পরিবারের হাতে হস্তান্তর

 

জীবননগর ব্যুরো: সাতক্ষীরা মুন্সিপাড়া হাফেজিয়া মাদরাসা থেকে পালিয়ে আসা দু কিশোরকে জীবননগর থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। শিক্ষকের নির্যাতনের ভয়ে মাদরাসা থেকে পালিয়েছিলো উদ্ধার হওয়া এ দু কিশোর। গতকাল শুক্রবার দুপুরে এদেরকে তাদের পরিবারের  হাতে তুলে দেয়া হয়েছে।

জানা গেছে, সাতক্ষীরার লাবসার এলাকার আবু কালামের ছেলে তাজ (১৫) এবং আব্দুল মজিদের ছেলে রায়হান (১৪) সাতক্ষীরা মুন্সিপাড়া হাফেজিয়া মাদরাসার ছাত্র। শিক্ষকের নির্যাতনের ভয়ে গত বুধবার রাতে মাদরাসা থেকে তারা পালিয়ে আসে। গত বৃহস্পতিবার রাতে জীবননগর বাসস্ট্যান্ডে ব্যবসায়ী শফিকুল ইসলাম বালু কেনার উদ্দেশে একটি বালুভর্তি ট্রাকে উঠলে এ দু কিশোরকে ঘুমন্ত অবস্থায় দেখতে পান। সেখান থেকে তাদেরকে উদ্ধার করে জীবননগর বাসস্ট্যান্ড সংলগ্ন পোস্টঅফিস পাড়ার এক ব্যক্তির বাড়িতে রেখে তাদের পরিবারকে মোবাইলফোনে খবর দেয়া হয়। গতকাল শুক্রবার দুপুরে তাজু ও রায়হান নামের এ দু কিশোরকে তাদের পরিবারের সদস্যদের হাতে তুলে দেওয়া হয়।

উদ্ধারকৃত দু কিশোর জানায়, তাদের দুষ্টুমির কারণে মাদরাসাশিক্ষক হাফেজ মো. মুনারুল ইসলাম তাদেরকে একসাথে না থাকার নির্দেশ দেন। কিন্তু শিক্ষকের কথার অবাধ্য হয়ে দু বন্ধু একসাথে দুষ্টুমি করে। এ কারণে শিক্ষক মুনারুল ইসলাম তাদেরকে শাস্তি দেবেন এ ভয়ে বুধবার রাতে তারা মাদরাসা থেকে পালিয়ে আসে। এরপর বিভিন্ন উপায়ে তারা জীবননগরে আসে।

ছবি সংযুক্ত: দুই বাবার মাঝে মাদ্রাসা থেকে পালিয়ে আসা দু’ ছেলে তাজ ও রায়হান ।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *