শাহজালাল বিমানবন্দরেপৃথক অভিযানে ৩৮ কেজি স্বর্ণসহ আটক ৪

 

 

স্টাফ রিপোর্টার: হযরতশাহজালাল (র.) আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৃথক অভিযান চালিয়ে ৩৮ কেজি স্বর্ণসহ ৪ জনকে আটককরেছে কাস্টমস কর্তৃপক্ষ। আটকরা হলেন, শরিফ (২৫), মো.ইকবাল (৩২), আমিরুল ইসলাম (২৭) এবং আলী (৪৫)।কাস্টমস’রযুগ্ম-কমিশনার কাজী জিয়াউদ্দিন জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতেকাস্টমস সদস্যরা ব্যাংকক থেকে আসা বাংলাদেশ এয়ার লাইন্সের (বিজি-০৮৯)বিমানে অভিযান চালায়। এ সময় বিমানের শৌচাগার দুটি পোটলা উদ্ধার করা হয়।পোটলা দুটো খুলে স্বর্ণের ২৭০টি বার পাওয়া যায়। যার ওজন ৩২ কেজি এবং মূল্যপ্রায় ১৬ কোটি টাকা।তিনি আরো জানান, আটক শরিফের বাড়ি চট্টগ্রামএবং আলীর বাড়ি নোয়াখালীতে। স্বর্ণের বারগুলোর প্রকৃত মালিক কে তা জানতেরিপোর্ট লেখা পর্যন্ত আটকদের জিজ্ঞাসাবাদ চলছিলো।

অপরদিকে, হযরতশাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দর থেকে প্রায় ৫ কোটি টাকার স্বর্ণ ওবিদেশি সিগারেটসহ মো.ইকবাল (৩২) এবং আমিরুল ইসলাম (২৭) নামে দু যাত্রীকেগ্রেফতার করেছে বিমানবন্দর কাস্টমস ও শুল্ক-গোয়েন্দা বিভাগ।গত শনিবার রাত আড়াইটার দিকে মো.ইকবালকে স্বর্ণসহ গ্রেফতার করা হয়। তার বাড়ি চট্টগ্রামে।বিমানবন্দর কাস্টমসের শুল্ক ও গোয়েন্দা বিভাগের সহকারী পরিচালক উম্মে নাহিদা আক্তার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।তিনিজানান, উদ্ধারকৃত স্বর্ণের ওজন প্রায় ৬ কেজি (৫০টি বার)। ওই ব্যক্তিদুবাই দোহা বিমান বন্দর হয়ে বোয়িং কিউআর-৬৩২ ফ্লাইটে করে ঢাকায় এসেছে। তারপাসপোর্ট নম্বর এএফ-৯৯৬৮৮৫২। উদ্ধারকৃত স্বর্ণের আনুমানিক মূল্য প্রায় ৩কোটি টাকা।এদিকে স্বর্ণ আটকের কিছুক্ষণ পরে বোয়িং এমএইচ-১৯৬ফ্লাইটে করে অবৈধভাবে আসা ২৯৪ কার্টন ব্লাক ব্রান্ডের বিদেশি সিগারেটউদ্ধার করা হয়। সিগারেটগুলো ব্যাগের মধ্যে ছিলো। যার আনুমানিক মূল্য ১০লাখ টাকা। কিন্তু এ ঘটনায় কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি।এর আগে ৪ কেজি৩০০ গ্রাম স্বর্ণসহ আমিরুল ইসলাম (২৭) নামে এক যাত্রীকে গ্রেফতার করেনকাস্টমস হাউজের কর্মকর্তারা। যার আনুমানিক মূল্য প্রায় ২ কোটি টাকা। তিনিমালয়েশিয়া থেকে এমএইচ-১০২ ফ্লাইটে করে এসেছেন। তার গ্রামের বাড়ি গোপালগঞ্জ।

Leave a comment

Your email address will not be published.