লক্ষ্মীপুরে র‌্যাবের ক্রসফায়ারে শীর্ষ দু সন্ত্রাসী নিহত

স্টাফ রিপোর্টার: লক্ষ্মীপুরে র‌্যাবের ক্রসফায়ারে শীর্ষ দু সন্ত্রাসী নিহত হয়েছে। নিহতরা হলো সদর উপজেলার দিঘলী ইউনিয়নের জামিরতলী গ্রামের আসাদুজ্জামান বাবুল (৩৫)) এবং তার সহযোগী একই এলাকার খোরশেদ আলম (৩২)। গতকাল রোববার রাত সাড়ে ১২টার দিকে ক্রসফায়ারে নিহতের ঘটনা ঘটে। লক্ষ্মীপুর সদর থানার ওসি মো. ইকবাল হোসেন জানান,  গোপন খবরের ভিত্তিতে র‌্যাবের একটি টিম জামিরতলী গ্রামে অভিযান চালায়। এ সময় র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে বাবুল ও তার সহযোগীরা র‌্যাবকে লক্ষ্য করে গুলি করে। র‌্যাবও পাল্টা গুলি করে। গোলাগুলির একপর্যায়ে পুলিশের তালিকাভুক্ত শীর্ষ সন্ত্রাসী বাবুল ও খোরশেদ ঘটনাস্থলে নিহত হয়। ওসি আরো জানান, বাবুল ও খোরশেদের বিরুদ্ধে হত্যাসহ কয়েকটি মামলা রয়েছে।

অপরদিকে কাদের মোল্লার ফাঁসির পর চলমান সহিংসতার মধ্যে লক্ষ্মীপুরের রায়পুর উপজেলায় এক ছাত্রলীগ নেতাকে গলা কেটে খুন করেছে দুর্বৃত্তরা। রোববার সন্ধ্যার লুধুয়া বাজারে এ হামলায় অপর দুজন আহত হন, যাদের মধ্যে একজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। নিহত মিরাজ হোসেন জেলা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এবং দেনায়েতপুর গ্রামের আবুল কালামের ছেলে। আহতরা হলেন উপজেলা যুবলীগের সহসভাপতি মাকসুদ এবং যুবলীগকর্মী রানা। মাকসুদকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ঢাকায় পাঠানো হয়েছে। রানাকে পাঠানো হয় রায়পুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে। রায়পুর থানার ওসি রুপক কুমার সাহা হত্যাকাণ্ডের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। আওয়ামী লীগ এ হামলার জন্য ইসলামী ছাত্র শিবিরকে দায়ী করেছে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *