মায়ের মৃত্যুর দিনেই মারা গেলো শিশু সৌরভ!

 

এক বছরের ব্যবধানে মাছেলের অস্বাভাবিক অকাল প্রয়াণে নানা প্রশ্ন

অনিক সাইফুল: এক বছর আগে ঠিক যেদিন মা বন্যা মারা যান, এক বছর পর ঠিক সেই দিনেই লাশ হলো তিন বছরের এক রত্তি ছেলে সৌরভ। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে বাড়ির পাশের পুকুর থেকে শিশু সৌরভের লাশ উদ্ধার করা হয়। পরিবারের সদস্যদের দাবি, সৌরভ সকলের চোখ এড়িয়ে পানিতে নেমে ডুবে মারা গেছে।

জানা গেছে, চুয়াডাঙ্গা জেলা সদরের মোমিনপুর ইউনিয়নের কবিখালী গ্রামের সানোয়ার মেম্বারের প্রথম স্ত্রী বন্যা এক বছর আগে ১৫ সেপ্টেম্বর মারা যান। রেখে যান একমাত্র ছেলে সৌরভকে। তখন ওর বয়স ছিলো দু বছর। বন্যা কীভাবে মারা যান? পরিবারের সদস্যরা বলেছেন, আকস্মিক হৃদরোগে বন্যা মারা যান। এরপর সানোয়ার মেম্বার জীবননগরের পিয়ারাতলা গ্রামে দ্বিতীয় বিয়ে করে দ্বিতীয় স্ত্রী ঘরে আনেন। এরপর?

আদর অনাদারেই বেড়ে উঠছিলো মা হারা শিশু সৌরভ। তাকে রেখেই নাকি তার সৎ মা পিতাকে সাথে নিয়ে বেড়াতে যান জীবনগরের পিয়ারাতলায়। এদিকে দাদার কাছেই ছিলো সৌরভ। পরিবারের সদস্যরা বলেছেন, দুপুরে যখন দাদা খেতে বসেন তখন সৌরভের খোঁজ শুরু হয়। বিকেলে পাওয়া যায় লাশ। গতকালই সন্ধ্যায় গ্রাম্য কবরস্থানে দাফন কাজ সম্পন্ন করা হয়।

ঠিক যেদিন মা মারা গেলেন, এক বছর পর ঠিক সেই দিনেই শিশু সৌরভের মৃত্যু হলো? কাকতালীয় নাকি মা ও ছেলের মৃত্যুর আড়ালে লুকিয়ে আছে চাঞ্চল্যকর রহস্য? জবাব খুঁজতে উচিত ছিলো পুলিশি তদন্ত। এই উচিত কাজটি কি হবে? সানোয়ার হোসেন মোমিনপুর ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচিত মেম্বার।

 

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *