মাইক্রোবাসের ধাক্কায় বুয়েটছাত্রী আহত : সড়ক অবরোধ

স্টাফ রিপোর্টার: বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) এক ছাত্রী মাইক্রোবাসের ধাক্কায় আহত হওয়ার প্রতিবাদে রাজধানীর পলাশী মোড়ে গতকাল রোববার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত সড়ক অবরোধ করে শিক্ষার্থীরা। এ সময় বুয়েটের ভিসি পলাশী মোড়ে অস্থায়ী গোল চত্বর নির্মাণের আশ্বাস দেন।

বুয়েট ছাত্র কল্যাণ অফিস এবং প্রত্যক্ষদর্শীসূত্রে জানা যায়, সকাল সাড়ে ৮টার দিকে রিক্সায় চড়ে ক্যাম্পাসের দিকে যাচ্ছিলেন স্থাপত্যবিদ্যা বিভাগের তৃতীয় বর্ষের ছাত্রী অনিতা তাসনিম। পলাশী মোড়ের সোনালী ব্যাংকের সামনের সড়কে একটি বাস পেছন থেকে ধাক্কা দেয় রিক্সাটিকে। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিত্সার জন্য নিয়ে যান। কয়েকজন মাইক্রোবাসটি আটক করেন। দুর্ঘটনার সংবাদ বুয়েট ক্যাম্পাসে পৌঁছুলে শতাধিক শিক্ষার্থী ক্ষুব্ধ হয়ে পলাশী মোড়ে এসে আটক মাইক্রোবাসটি ভাঙচুর করে। পরে তারা সড়ক অবরোধ করে রাখেন। শিক্ষার্থীরা পলাশী মোড়ে স্থায়ীভাবে ট্রাফিক পুলিশ ও গোল চত্বর স্থাপনা নির্মাণের দাবিতে স্লোগান দেন। অবরোধের কারণে সকাল ৯টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত ওই সড়কে গাড়ি চলাচল বন্ধ ছিলো। এ সময় আজিমপুর-পলাশী-নীলক্ষেত সড়কে যানজটের সৃষ্টি হয়।

দুপুর ১২টার দিকে বুয়েটের ভিসি অধ্যাপক নজরুল ইসলাম ঘটনাস্থলে এসে শিক্ষার্থীদের দাবি মেনে নেয়ার আশ্বাস দিয়ে অবরোধ তুলে নিতে অনুরোধ করেন। তিনি সাংবাদিকদের বলেন, শিক্ষার্থীদের দাবি মেনে নেয়া হবে। এজন্য সংশ্লিষ্টদের সাথে যোগাযোগ করা হচ্ছে। তাত্ক্ষণিকভাবে পলাশী মোড়ে অস্থায়ী গোল চত্বর নির্মাণ এবং বুয়েটের প্রধান ফটকে ট্রাফিক পুলিশ বসানোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে। শাহবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সিরাজুল ইসলাম বলেন, ঘটনার পরপরই অতিরিক্ত পুলিশ নিয়ে ঘটনাস্থলে যাই। শিক্ষার্থীদের শান্ত করার চেষ্টা করলেও তারা মাইক্রোবাসটি ভাঙচুর করে ও সড়ক অবরোধ করে রাখেন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *