মহেশপুরে বিএসএফের হাতে এক বাংলাদেশি আটক : রাজশাহী সীমান্তে ৩ কৃষক অপহৃত

মহেশপুর প্রতিনিধি: রাজশাহীর চারঘাট উপজেলার সীমান্তে তিন কৃষককে ভারতীয় সন্ত্রাসীরা অপহরণ করেছে বলে জানিয়েছে বিজিবি। এদিকে মহেশপুর উপজেলার কুসুমপুর সীমান্ত দিয়ে ভারতে গরু আনতে গিয়ে বিএসএফের হাতে বাংলাদেশি গরুব্যবসায়ী পটল মিয়া (৪০) আটক হয়েছে।

তার পারিবারিকসূত্রে জানা গেছে, গত সোমবার উপজেলার কুসুমপুর গ্রামের হাবিবুর রহমানের ছেলে পটল মিয়া ভারতের নোনাগঞ্জ গ্রামে গরু অনতে গিয়ে গরু না পেয়ে ওই গ্রামের এক ব্যবসায়ীর বাড়িতে দুদিন ধরে অবস্থান করছিলো। গতাকাল বুধবার ভারতের টুঙ্গিপাড়া ক্যাম্পের টহল বিএসএফ গোপন সংবাদ পেয়ে ওই ব্যবসায়ীর বাড়ি থেকে সকাল ৬টায় তাকে আটক করে ক্যাম্পে নিয়ে যায়। এ সংবাদ তার কুসুমপুর গ্রামে বাড়িতে পৌঁছুলে বাড়ির লোকজন কুসুমপুর বিজিবি ক্যাম্পে গিয়ে খবর দেয়। ওই খবর পেয়ে কুসুমপুর বিজিবি ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার আব্দুল কাদের তার সন্ধানের জন্য ভারতের টুঙ্গিপাড়া ক্যাম্পে পত্র পাঠিয়েছেন বলে জানা গেছে।

অপরদিকে রাজশাহীর চারঘাট উপজেলার সীমান্তে তিন কৃষককে ভারতীয় সন্ত্রাসীরা অপহরণ করেছে বলে জানিয়েছে বিজিবি। গতকাল  বুধবার বিকেলে উপজেলার মোক্তারপুর এলাকার পদ্মার চরে ঘাস কাটতে গেলে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে তাদের ধরে নিয়ে যায় তারা। অপহৃত কৃষকরা হলেন ওই এলাকার রহিম উদ্দিনের ছেলে আব্দুল হানিফ (৩০), জলিল উদ্দিনের ছেলে জাবেদ আলী (২৮) ও  রুহুল আলীর ছেলে রুবেল আলী (৩০)। এ ঘটনায় আহত শুকরান জানান, তাদের হাত থেকে পালানোর জন্য দৌঁড় দিলে সন্ত্রাসীরা পেছন থেকে হেঁসো দিয়ে কোপ দেয়। আহত কৃষকের বরাত দিয়ে বিজিবির চারঘাট বিওপির কোম্পানি কমান্ডর ইউনুছ আলী বলেন, পাঁচ বাংলাদেশি কৃষক পদ্মার চরে ঘাস কাটতে যায়। এ সময় ভারতীয় সন্ত্রাসীরা তাদেরকে অস্ত্রের মুখে ধরে নিয়ে যায়। তবে সন্ধ্যা ৬টার দিকে সেখান থেকে ফজলুল হক (৪০) ও শুকরন আলী নামের দুজন আহত অবস্থায় পালিয়ে এসে আমাদেরকে ঘটনাটি জানায়। তারা ধারালো অস্ত্রের আঘাতে আহত হয়েছে। এদের মধ্যে শুকরানকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ বিষয়ে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীকে চিঠি পাঠানো হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে ইউসুবপুর এলাকায় পতাকা বৈঠক হতে পারে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *