ভোটের দিন বোমা হামলা হতে পারে

স্টাফ রিপোর্টার: আওয়ামী লীগের নির্বাচন পরিচালনা কমিটির কো-চেয়ারম্যান এইচ টি ইমাম বলেছেন, ‘নির্বাচন যে পুরোপুরি শান্তিপূর্ণ হবে, সেই গ্যারান্টি নেই। তবে আমরা চেষ্টা করবো শান্তিপূর্ণ করতে। ভোট গ্রহণের দিন দেশি-বিদেশি পর্যবেক্ষকেরা থাকবেন। কারচুপির কোনো সুযোগ থাকবে না। গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যায় নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কাজী রকিব উদ্দীন আহমদের সাথে সাক্ষাত শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রীর সাবেক এ উপদেষ্টা আরও বলেন, ভোটের দিন বোমা হামলা হতে পারে। আমরা চেষ্টা করবো ভোটাররা যাতে নির্ভয়ে কেন্দ্রে গিয়ে ভোট দিতে পারে। সে জন্য সেনাবাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে। বিরোধী দলের অবরোধ ও হরতাল কর্মসূচি সম্পর্কে এইচ টি ইমাম বলেন, বিশৃঙ্খলা কারা করছে। এদের সাথে বিরোধী দলও নেই। জামায়াত-শিবিরই নাশকতা চালাচ্ছে। তারা রাষ্ট্রের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছে। আসলে তারা নির্বাচন চায় না। তারা চায় দেশকে অস্থিতিশীল করে যুদ্ধাপরাধীদের বিচার কাজ বন্ধ করতে। বিএনপি তাদের সহযোগিতা করছে। অন্যরাও আছে। তবে তাদের অবরোধ আমরা ভেঙে ফেলবো। এইচ টি ইমাম জানান, নির্বাচন কমিশনের পরামর্শ অনুযায়ী আওয়ামী লীগ তাদের সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের সমাবেশ বাতিল করেছে। ২ জানুয়ারি এ সমাবেশের দিন নির্ধারিত ছিলো। কমিশন মনে করছে, জনসভা করা হলে তা আচরণবিধির পরিপন্থী হবে।

Leave a comment

Your email address will not be published.