ভবিষ্যত প্রজন্মকে যক্ষ্মামুক্ত দেশ উপহার দিতে হবে

Exif_JPEG_420

চুয়াডাঙ্গা-মেহেরপুরসহ সারাদেশে বিশ্বযক্ষ্মা দিবস পালিত

মাথাভাঙ্গা ডেস্ক: ‘নেতৃত্ব চাই যক্ষ্মা নির্মূলে, ইতিহাস গড়ি সবাই মিলে’ এ স্লোগানকে সামনে রেখে বিশ্বযক্ষ্মা দিবস পালিত হয়েছে। দিবসটি উপলক্ষে চুয়াডাঙ্গা-মেহেরপুরসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ব্র্যাকের জাতীয় যক্ষ্মা নিয়ন্ত্রণ কর্মসূচি, স্বাস্থ্য অধিদফতর ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রণালয়ে উদ্যোগে র‌্যালি ও আলোচনাসভার আয়োজন করা হয়।
এ সময় আলোচকবৃন্দ যক্ষ্মা নির্মূলে সকল স্তরের জনগণকে একত্রিত হয়ে কাজ করতে ও সকল ভয়ভীতি কুসংস্কার কাটিয়ে যক্ষ্মারোগীকে চিকিৎসার আওতায় আনতে সচেষ্ট হওয়ার জোর আহ্বান জানান।
তারা বলেন, সরকার সারাদেশে বিনামূল্যে যক্ষ্মা রোগের চিকিৎসা ও পরীক্ষার যে সুযোগ করে দিয়েছে সেই সুযোগকে কাজে লাগিয়ে প্রত্যেক ব্যক্তিকে নিজ নিজ অবস্থান থেকে যক্ষ্মারোগী শনাক্ত করার জন্য কাজ করতে হবে। তাহলেই ভবিষ্যত প্রজন্মকে যক্ষ্মামুক্ত দেশ উপহার দেয়া যাবে।
বক্তারা আরও বলেন, ২০১৬ সালে বাংলাদেশে ৬৬ হাজার লোক যক্ষ্মায় আক্রান্ত হয়ে মারা যায়, একই বছর ৬০ হাজার লোক এ রোগে আক্রান্ত হয়। একজন যক্ষ্মা রোগীর কাছ থেকে ১০ জনের মাঝে এ রোগ ছড়াতে পারে। বর্তমানে চিকিৎসায় এ রোগ ভালো হয়। আমাদের চিকিৎসা ব্যবস্থা বর্তমানে অনেক উন্নত। বর্তমান সরকার ২৬টি নির্মূল কমিটি নিয়ে সারাদেশে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। সবচেয়ে বড় কথা আমাদের সচেতনতা তৈরি করতে হবে।
চুয়াডাঙ্গায় দিবসটি পালন উপলক্ষে র‌্যালি ও আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল শনিবার সকাল ৯টার দিকে চুয়াডাঙ্গা সদর আধুনিক হাসপাতাল থেকে একটি র‌্যালি রেব করা হয়। র‌্যালিট শহরের প্রধান প্রধান সড়ক পদক্ষিণ শেষে একই স্থানে গিয়ে শেষ হয়। পরে সদর হাসপাতালের সম্মেলনকক্ষে আলোচনাসভার আয়োজন করা হয়। সভাপতিত্ব করেন সিভিল সার্জন ডা. মো. খায়রুল আলম। প্রধান অতিথি ছিলেন বিএমএ চুয়াডাঙ্গা জেলা শাখার সভাপতি ডা. মার্টিন হীরক চৌধুরী। বিশেষ অতিথি ছিলেন সাবেক অধ্যক্ষ সিদ্দীকুর রহমান, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আলী হোসেন, জাতীয় যক্ষ্মা নিয়ন্ত্রণ কর্মসূচির যুগ্মসম্পাদক প্রকৌশলী টিপু সুলতান, আত্মবিশ্বাসের প্রশাসনিক কর্মকর্তা আব্দুল হালিম, সুর্যের হাঁসি ক্লিনেকের ম্যানেজার মুস্তাক আহমেদ প্রমুখ। আলোচনাসভায় পাওয়ার প্লান্টের মাধ্যমে ভিডিও প্রদর্শন করেন সিনিয়র সহকারী স্বাস্থ্য শিক্ষা অফিসার রবজেল হক। অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন ব্র্যাক প্রতিনিধি জাহাঙ্গীর আলম।
আলমডাঙ্গা ব্যুরো জানিয়েছে, আলমডাঙ্গা উপজেলা স্থাস্থ্য কমপ্লেক্স চত্বরে জাতীয় যক্ষ্মা নিয়ন্ত্রণ কর্মসূচি, স্বাস্থ্য অধিদফতর, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয় এবং সহযোগী সংস্থাসমূহের আয়োজনে র‌্যালি আলোচনাসভার অনুষ্ঠিত হয়েছে। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স চত্বর থেকে র‌্যালি বের হয়ে হারদী শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনাসভায় ব্র্যাকের প্রোগ্রাম অর্গানাইজার তৈমুর মিয়ার সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন মেডিকেল অফিসার ডা. নাজনিন সুলতানা। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপসহকারী মেডিকেল অফিসার ডা. সাইফুল ইসলাম, ডা. তরিকুল ইসলাম সজিব, হারুন অর রশিদ, এমটি ল্যাব আজিজুল হক সোমা, টিএল সিএ আব্দুল মাবুদ, স্বাস্থ্য পরিদর্শক আনিসুর রহমান, স্যানেটারি ইন্সপেক্টর নিজাম উদ্দিন, প্রধান সহকারী খলিলুর রহমান, স্টোরকিপার জহুরুল ইসলাম, ক্যাশিয়ার শামসুন্নাহার, স্টাফ নার্স আলিয়া খাতুন, শারমিন, সুমিতা, ব্র্যাকের প্রোগ্রাম অর্গানাইজার সালমা, সাহিদা শিউলি, পারভীন, সুক্রিক্তী ম-ল প্রমুখ।
দামুড়হুদা প্রতিনিধি জানিয়েছেন, দামুড়হুদায় ‘নেতৃত্ব চাই যক্ষা নির্মূলে-ইতিহাস গড়ি সবাই মিলে’ এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে বিশ্ব যক্ষ্মা দিবস পালিত হয়েছে। গতকাল শনিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে চিৎলা হাসপাতাল সড়কে উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ ও এনজিও সংস্থা ব্র্যাকের উদ্যোগে এক বর্ণাঢ্য র‌্যালি বের হয়। র‌্যালি শেষে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কনফারেন্স রুমে দামুড়হুদা উপজেলা স্বাস্থ্য ও প:প: কর্মকর্তা ডা. আবু হেনা মোহাম্মদ জামাল শুভর সভাপতিত্বে যক্ষ্মা বিষয়ক আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় উপস্থিত ছিলেন দামুড়হুদা প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক বখতিয়ার হোসেন বকুল, প্রধান হিসাবরক্ষক কাওছার আলী, উপজেলা স্বাস্থ্য পরিদর্শক আবুল কাশেম, সহকারী স্বাস্থ্য পরিদর্শক আজগর আলী, ব্র্যাকের যক্ষা কর্মসূচির উপজেলা ম্যানেজার অচিন্ত কুমার বোস, ম্যানেজার আসাদুজ্জাান মাসুদ, সেলিম রেজা, হাসানুজ্জামান প্রমুখ।
মেহেরপুর অফিস জানিয়েছে, মেহেরপুরে দিবসটি উপলক্ষে গতকাল শনিবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে শহরের পৌর ঈদগাহ গেট থেকে ভারপ্রাপ্ত সিভিল সার্জন ডা. মিজানুর রহমানের নেতৃত্বে একটি র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি হাসপাতাল সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে সিভিল সার্জনের কার্যালয়ের সামনে গিয়ে শেষ হয়। মেহেরপুর জেনারেল হাসপাতালের আরএমও ডা. এহসানুল কবীর, ডা. তাপস কুমার, সিভিল সার্জন অফিসের স্বাস্থ্য বিষয়ক কর্মকর্তা রওশন আরাসহ হাসপাতালের চিকিৎসক, নার্স ও কর্মকর্তা-কর্মচারী র‌্যালিতে অংশ নেয়। পরে সিভিল সার্জন অফিসে দিবসটির ওপর আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়।
মুজিবনগর প্রতিনিধি জানিয়েছেন, মুজিবনগরে বিশ্ব যক্ষ্মা দিবস উপলক্ষে র‌্যালি, আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল শনিবার ১০টায় মুজিবনগর উপজেলা স্বাস্থ্য পরিবার পরিকল্পনা কার্যালয় ও ব্র্যাক স্বাস্থ্য বিভাগের আয়োজনে ডা. এইচএম আনোয়ারুল ইসলামের নেতৃত্বে বর্ণাঢ্য র‌্যালি মুজিবনগরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে মুজিবনগর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হলরুমে আলোচনাসভায় স্বাস্থ্য পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. এইচএম আনোয়ারুল ইসলামের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন আবসিক মেডিকেল অফিসার ডা. সাইফুল্লাহ মোর্শেদ, ব্র্যাক স্বাস্থ্য পুষ্টি ও যক্ষ্মা কর্মসূচির ম্যানেজার হাফিজুর রহমান।
ঝিনাইদহ প্রতিনিধি জানিয়েছেন, ঝিনাইদহে র‌্যালি ও আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল সকালে সিভিল সার্জনের কার্যালয়ের সামনে থেকে একটি র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি বিভিন্ন সড়ক ঘুরে একই স্থানে গিয়ে শেষ হয়। পরে সিভিল সার্জনের সম্মেলনকক্ষে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সিভিল সার্জন ডা. রাশেদা সুলতানার সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, নাটাব জেলা শাখার সভাপতি এনএম শাহজালাল, সাধারণ সম্পাদক কামালুজ্জামান, ব্র্যাক প্রতিনিধি শামীম হোসেন, সিভিল সার্জন অফিসের সিনিয়র স্বাস্থ্য শিক্ষা অফিসার ওয়াহিদুল ইসলাম, সদর উপজেলা সেনেটারি ইন্সপেক্টর ও নিরাপদ খাদ্য পরিদর্শক নারায়ন চন্দ্র বিশ্বাস। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন সিভিল সার্জন অফিসের মেডিকেল অফিসার ডা. প্রসেনজিৎ বিশ্বাস পার্থ। এ সময় বক্তারা, যক্ষা নির্মূলে সকলকে সচেতন হওয়ার আহ্বান জানান।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *