ব্যাপক ধরপাকড় শুরু : সারাদেশে অবরোধে আরো দুজনের মৃত্যু

মেহেরপুরে অবরোধের সমর্থনে জামায়াত-বিএনপির পৃথক বিক্ষোভ মিছিল

 

স্টাফ রিপোর্টার: বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের লাগাতার অবরোধ কর্মসূচিতে নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ এবং গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে ঝরে গেলো আরো দু প্রাণ। এ নিয়ে ৮ দিনে সহিংসতায় ১৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া অবরোধ কর্মসূচির সপ্তম দিন গতকাল সোমবার বিভিন্ন স্থানে যানবাহন ভাঙচুর ও বোমাবাজিসহ নানা ধরনের নাশকতায় অর্ধশতাধিক ব্যক্তি আহত হয়েছেন। ঢাকাসহ দেশের ৯ জেলায় ১৪টি গাড়িতে অগ্নিসংযোগের খবর পাওয়া গেছে।

এদিকে বিএনপির সহদপ্তর সম্পাদক কৃষিবিদ শামীমুর রহমান শামীমকে গোয়েন্দা পুলিশ সোমবার বিকেলে রাজধানীর ধানমন্ডির শঙ্কর বাসস্ট্যান্ড এলাকা থেকে আটক করেছে। এর আগে রোববার গভীররাতে গুলশান-২ নম্বর এলাকা থেকে বিএনপির যুগ্মমহাসচিব ও নোয়াখালী সদর আসনের সাবেক এমপি মোহাম্মদ শাহজাহানকে গ্রেফতার করে র‌্যাব। এ সময় তার সাথে দলের নির্বাহী কমিটির সদস্য বেলাল হোসেনকেও আটক করা হয়। শাহজাহানের বিরুদ্ধে সরকারবিরোধী চক্রান্তের অভিযোগ আনা হয়েছে।

এছাড়া সোমবার দুপুরে রামপুরা এলাকা থেকে জাসাস দক্ষিণের সাধারণ সম্পাদক খালেদ এনাম মুন্নাকে আটক করেছে ডিবি পুলিশ। পরে তাকে ডিবির প্রধান কার্যালয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন জাসাস নেতা জাহাঙ্গীর শিকদার। রাজশাহী বিভাগে ২০ দলের সমন্বয়ক বিএনপি নেতা মিজানুর রহমান মিনুকে ধরতে রোববার রাতে তার ভদ্রা আবাসিক এলাকার বাড়িতে অভিযান চালিয়েছে পুলিশ। বিএনপির অবরোধকে কেন্দ্র করে উসকানিমূলক বক্তব্য দেয়ায় তাকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে বলে বোয়ালিয়া থানার ওসি স্বীকার করেছেন। একই রাতে রাজশাহী মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শফিকুল হক মিলনের বাসাতেও অভিযান চালিয়েছে পুলিশ।

অন্যদিকে বিশেষ ক্ষমতা আইনে করা মামলায় গ্রেফতারকৃত বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার উপদেষ্টা শামসুজ্জামান দুদুকে সোমবার ৫ দিনের রিমান্ড দিয়েছে আদালত। পুলিশের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকা মহানগর হাকিম আমিনুল হক সোমবার এ আদেশ দেন। রোববার রাতে রাজধানীর মিরপুরের একটি রেস্তোরাঁ থেকে তাকে গ্রেফতার করে পুলিশ। ওই রাতেই মিরপুর থানাপুলিশ বিশেষ ক্ষমতা আইনে দুদুর বিরুদ্ধে একটি মামলা রুজু করেন।

এদিকে ছাত্রদলের ডাকা ১৪ জেলার হরতাল অনেকটা ঢিলেঢালাভাবেই পালিত হয়েছে। এ কর্মসূচি চলাকালে দলের নেতাকর্মীর রাজপথে দেখা মেলেনি। হরতাল চলাকালে নাশকতার অভিযোগে পুলিশ বিভিন্ন এলাকা থেকে ছাত্রদলের অন্তত ৪০ নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করেছে।

মেহেরপুর অফিস জানিয়েছে, ‘স্বৈরাচারী নিপাত যাক, গণতন্ত্র মুক্তি পাক’ এ স্লোগানে অবরোধের ৭ম দিনে মেহেরপুরে ২০ দলীয় জোটের সমর্থকরা বিক্ষোভ মিছিল করে। সাবেক এমপি ও বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য মাসুদ অরুনের নেতৃত্বে মিছিলটি বোস প্রাঙ্গণ থেকে শুরু হয়। বিক্ষোভকারীরা ৭ দফা দাবির সমর্থনে বিভিন্ন স্লোগান দেয়। মিছিলে উপস্থিত ছিলেন পৌর বিএনপির সভাপতি জাহাঙ্গীর বিশ্বাস, জেলা বিএনপির যুগ্মসম্পাদক মাহবুবুর রহমান, মুজিবনগর উপজেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুর রশিদ, সদর উপজেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক সাহাবুদ্দিন মোল্লা, জেলা বিএনপির দপ্তর সম্পাদক আব্দুর রহিম, ছাত্রনেতা আহমেদ রাজিব খান, জেলা তাঁতিদল নেতা মাহমুদুল হাসান জুয়েল প্রমুখ।

মেহেরপুর অফিস আরও জানিয়েছে, চলমান অবোরোধ উপলক্ষে মেহেরপুর-মুজিবনগর মহাসড়কে বিক্ষোভ মিছিল করেছে জেলা জামায়াত নেতৃবৃন্দ। জেলা জামায়াতের উদ্যোগে গতকাল সোমবার সকালে মুজিবনগর উপজেলার গৌরিনগর এলাকায় ওই বিক্ষোভ মিছিল করা হয়। বিক্ষোভ মিছিলে নেতৃত্ব দেন জেলা জামায়াতের সূরা সদস্য মাওলানা খানজাহান আলী। এ সময় জামায়াত নেতা খাইরুল বাশার প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *