বিভিন্ন স্থানে গাড়ি ভাঙচুর : যুবদলের ৩ জন আটক

চুয়াডাঙ্গা বিএনপি ও তার অঙ্গ দলসমূহের ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতাল পালিত

 

স্টাফ রিপোর্টার: চুয়াডাঙ্গা বিএনপি ও তার অঙ্গ দলসমূহের ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতাল পালিত হয়েছে। বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার উপদেষ্টা কৃষকদলের সাধারণ সম্পাদক চুয়াডাঙ্গা-১ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য শামসুজ্জামান দুদুকে ঢাকায় গ্রেফতারের প্রতিবাদে চুয়াডাঙ্গায় এ হরতালের আহ্বান করে। শহরের বেশ কয়েকটি স্থানে গাড়ি ভাঙচুর করা হয় এ সব ঘটনায় পুলিশ ৩ জনকে আটক করেছে। আটককৃতরা হলো- হায়দারপুর গ্রামের মাহাতাব উদ্দীনের ছেলে যুবদলের সদস্য মাহাবুল ইসলাম, বজরুকগড়গড়ির কোরবান আলীর ছেলে মুকুল ও আব্দুর রশিদের ছেলে কাজলকে আটক করে। চুয়াডাঙ্গা কোর্ট মোড়ের মেসার্স আপন ট্রেডার্সের স্বত্বাধিকারী মুক্ত জোয়ার্দ্দার মাথাভাঙ্গাকে জানিয়েছেন, আটককৃত কাজল আমার দোকানের কর্মচারী। সে শখের বসে পিকেটিংকারীদের ছবি মোবাইলে ধারণ করছিলো। এ সময় পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে। কাজল কোনো রাজনৈতিক কর্মী নয় এবং কোনো মিছিল মিটিং বা ভাঙচুরের সাথে জড়িত নয়।

DSCN8919

চুয়াডাঙ্গা জেলা শহরের পুলিশের টহল জোরদার করা হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবারে হরতালে দূরপাল্লার কোনো যানবাহন চলাচল করতে দেখা যায়নি। অভ্যন্তরীণ রুটেও কোনো লোকাল বাস চলাচল করেনি। চুয়াডাঙ্গা শহরে দোকান-পাট আংশিক খোলা থাকলেও বেচাকেনা ছিলো তুলানামূলক কম। অফিস-আদালত খোলা থাকলেও কার্যক্রমে ছিলো ধীরগতি। শহরের বিভিন্ন রাস্তার মোড়ে মোড়ে পুলিশের উপস্থিতি ছিলো চোখে পড়ার মতো। চুয়াডাঙ্গা জেলায় বিএনপির ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতালে বিভিন্ন স্থানে ভাঙচুর করেছে পিকেটাররা। এ সময় পুলিশ চুয়াডাঙ্গা কোর্ট এলাকা থেকে জেলা যুবদলের ৩ সদস্যকে আটক করে। গতকাল মঙ্গলবার চুয়াডাঙ্গা জেলা শহরের কোর্ট মোড় এলাকায় একটি ট্রাক, টার্মিনালে একটি, কানাপুকুর এলাকায় একটি, আদর্শ স্কুলের কাছে ৩টি, সার্কিট হাউজের কাছে একটি, ডাকবাংলো মোড়ে একটি ইজবাইক ভাঙচুর করা হয়। এছাড়াও ডিঙ্গেদহ হাইওয়ে ফিলিং স্টেশনের অদূরে একটি ট্রাক, দামুড়হুদা ফিলিং স্টেশনের কাছে একটি ট্রাক ও জীবননগর উথলীতে একটি ইজবাইক ভাঙচুর করেছে।

এদিকে জেলা যুবদলের যুগ্ম আহ্বায়ক শহিদুল ইসলাম রতন স্বাক্ষরিত এক প্রেসবিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, বেলা ১১টার দিকে চুয়াডাঙ্গা প্রেসক্লাবের সামনে থেকে হরতালের সমর্থনে মিছিল বের করা হয়। প্রেসবিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়, বেগম খালেদা জিয়ার আহ্বানে দেশব্যাপি যখন শান্তিপূর্ণ অবরোধ পালন করা হচ্ছে। ঠিক তখনই সরকারের পেটুয়া পুলিশবাহিনী ঢাকা মিরপুর থেকে বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা শাসুজ্জামান দুদুকে গ্রেফতার করে। গ্রেফতারের প্রতিবাদে চুয়াডাঙ্গা জেলায় সকাল-সন্ধ্যা হরতাল পালক করা হয়েছে। হরতালের সমর্থনে বিক্ষোভ মিছিলে অংশগ্রহণ করেন জেলা যুবদলের যুগ্ম শহিদুল ইসলাম রতন, সেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি অ্যাড. শামীম রেজা ডালিম, বিএনপি নেতা রেজাউল করিম মুকুট, জেলা বিএনপি সদস্য আবু জাফর মন্টু, জেলা কৃষকদলের সাধারণ সম্পাদক নাজমুস সালেহীন লিটন, জেলা যুবদলের সদস্য আশরাফ বিশ্বাস মিল্টু, ইমরুল জোয়ার্দ্দার মুকুল, জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম আহ্বায়ক মুঞ্জরুল জাহিদ, ছাত্রদল নেতা সাইফুল ইসলাম সুমন, জুয়েল হাসান, সাজিদ হাসান মালিক সজিব, তৌফাতুর রিংকু, জুয়েল, সাজু, মবিন, শুভ প্রমুখ।

আলমডাঙ্গা ব্যুরো জানিয়েছে, বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে অবরুদ্ধ ও তার উপদেষ্টা শামসুজ্জামান দুদুকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে জেলা বিএনপি ও অঙ্গ দলসমূহের ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতালের সমর্থনে আলমডাঙ্গায় বিএনপির একাংশের বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার বিক্ষোভ মিছিল শেষে হাজিমোড়স্থ দলীয় কার্যলায়ে সমাবেশে বিএনপির একাংশের পৌর সভাপতি ইসরাফ হোসেনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা বিএনপির সদস্য সহিদুল কাউনাইন টিলু। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শেখ সাইফুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক আনোয়ার হোসেন, পৌর বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক রেজাউল করিম। জেলা ছাত্রদলের সদস্য শওকত ওসমানের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন বিএনপি নেতা মহাবুল আব্দুল হান্নান, হাফিজুর রহমান চমক, উপজেলা যুবদলের যুগ্ম আহ্বায়ক ওহিদুল ইসলাম, জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম আহ্বায়ক তৌফিক খান, সদস্য শফিকুল আজম ডালিম, আবজাল, সাগর, রুবেল, সবুজ, আকরাম প্রমুখ।

দামুড়হুদা অফিস/প্রতিনিধি জানিয়েছেন, জেলা বিএনপির ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতাল ঢিলেঢালা পালন হয়েছে। দামুড়হুদা ওদুদ শাহ কলেজের নিকট একটি ট্রাক ভাঙচুর করে দুর্বৃত্তরা। গতকাল সকাল থেকেই রাস্তায় ভারী যানবহন চলাচল করেনি। তবে ব্যবসা-প্রতিষ্ঠান, দোকানপাট, অফিস-ব্যাংক, বীমা খোলা ছিলো। হরতালের পক্ষে বিপক্ষে কোনো মিছিল মিটিং হয়নি।

বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা চুয়াডাঙ্গা-১ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য শামসুজ্জামান দুদুকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে চুয়াডাঙ্গা জেলায় সকাল-সন্ধ্যা হরতাল চলাকালে দামুড়হুদায় একটি ট্রাক ভাঙচুর করেছে পিকেটাররা। গতকাল মঙ্গলবার বেলা ১২টার দিকে চুয়াডাঙ্গা-যশোর মহাসড়কের দামুড়হুদা বাসস্ট্যান্ডের অদূরে ফিলিং স্টেশনের সামনে ছাত্রদলের পিকেটাররা (খুলনা-মেট্রো-ট-১১-০৪৪৯) একটি ট্রাক ভাঙচুর করে। ট্রাকচালক নয়ন জানান, কোটচাঁদপুরে মাল আনলোড করে খালি ট্রাক নিয়ে চুয়াডাঙ্গায় ফিরছিলেন। বেলা ১২টার দিকে দামুড়হুদা বাসস্ট্যান্ডের অদূরে ফিলিং স্টেশনের সামনে পৌছুলে ২/৩ জন আচমকা গ্লাসে ইট ছুড়ে মোটরসাইকেলযোগে পালিয়ে যায়। চুয়াডাঙ্গার ভালাইপুরের সিরাজুল ইসলামের ট্রাক বলে চালক জানান। দামুড়হুদা মডেল থানার ওসি কামরুজ্জামান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, একটি মোটরসাইকেলে ৩টি ছেলে এ ট্রাকটি ভাঙচুর করে দ্রুত সটকে পড়ে। ওই ৩ ছেলে শুধু দামুড়হুদায়ই না আলমডাঙ্গা ও চুয়াডাঙ্গাতেও একই স্টাইলে ট্রাক ভাঙচুর করেছে বলে খবর পেয়েছি।

জীবননগর ব্যুরো জানিয়েছে, ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি সংসদ সদস্য বিএনপি চেয়ারপারন বেগম খালেদা জিয়ার উপদেষ্টা শামসুজ্জামান দুদুকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে চুয়াডাঙ্গা জেলা বিএনপির ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতাল গতকাল মঙ্গলবার জীবননগরে ঢিলেঢালাভাবে পালিত হয়েছে। হরতালের কারণে এখান থেকে আন্তঃজেলা ও দূরপাল্লার কোনো পরিবহন ছাড়েনি। তবে শ্যালোইঞ্জিনচালিত নসিমন-করিমন, ইজিবাইকের চলাচল ছিলো স্বাভাবিক। ব্যাংক-বীমা ও সরকারি প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম ছিলো স্বাভাবিক। হরতালের পক্ষে-বিপক্ষে ছিলো না কোনো মিছিল মিটিং কিংবা পিকেটিং। হরতালে নাশকতা ঠেকাতে উপজেলার রেলস্টেশনসহ গুরুত্বপূর্ণ স্থানগুলোতে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন ছিলো।

এদিকে সদর থানা পুলিশ জানিয়েছে, দুর্বৃত্তরা বিশেষ কায়দায় কয়েকটি পেরেক একসাথে জোড়া লাগিয়ে রাস্তায় ছুড়ে ফেলে রাখছে। কোনো যানবাহন তার ওপর দিয়ে গেলেই টায়ার ফুটো হয়ে যাচ্ছে। গতরাত ১১টার দিকে চুয়াডাঙ্গা ঘোড়ামারা ব্রিজ এলাকা থেকে বিশেষ কায়দায় তৈরি বেশকিছু পেরেক উদ্ধার করেছে পুলিশ।

চুয়াডাঙ্গা সদর থানার ওসি আসাদুজ্জামান মুন্‌সী জানান, এই পেরেকের কারণে যানবাহন দুর্ঘটনার কবলে পড়ে যাত্রীদের জীবন বিপন্ন হতে পারে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *