বাপের বাড়ি দামুড়হুদার নওদাগা থেকে কার্পাসডাঙ্গা কোমরপুরে ফেরার পথে দুর্ঘটনা

করিমনের চাকায় শাড়ি পেঁচিয়ে মহিলা জখম

 

স্টাফ রিপোর্টার: দামুড়হুদা কার্পাসডাঙ্গা কমরপুরের আব্দুর রশিদের স্ত্রী চায়না খাতুন মৃত্যুর সাথে লড়ছেন। তিনি তার পিতার বাড়ি নাওদাগা থেকে স্বামী গৃহে ফেরার পথে পরনের শাড়ি করিমনের চাকায় জড়িয়ে আছড়ে পড়ে গুরুতর জখম হন।

গতকাল শনিবার সন্ধ্যায় দেউলীর নিকট এ দুর্ঘটনা ঘটে। চায়না খাতুনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। চিকিৎসা চলছে। গতরাতে শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত চায়না খাতুনের চেতনা স্বাভাবিক হয়নি। কর্তব্যরত চিকিৎসক বলেছেন, আশঙ্কাজনক। চিকিৎসা চলছে।

‌জানা গেছে, চুয়াডাঙ্গা দামুড়হুদার কার্পাসডাঙ্গা কোমরপুরের আব্দুর রশিদের স্ত্রী তার পিতার বাড়ি নওদাগা গ্রামে বেড়াতে যান। সেখান থেকে তিনি করিমনযোগে স্বামীগৃহে ফিরছিলেন। দেউলীর নিকট পৌঁছুলে পরনের শাড়ি করিমনের চাকায় জড়িয়ে আছড়ে পড়ে মাথায় গুরুতর আঘাতপ্রাপ্ত হন। মাটিতে লুটিয়ে পড়েন। স্থানীয়দের সহযোগিতায় উদ্ধার করে তাকে হাসপাতালে নেয়া হয়। চায়নার শয্যাপাশে থাকা লোকজন এ তথ্য জানিয়েছে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *