দেশ বরণ্য নজরুল গীতি শিল্পী সোহরাব হোসেনের প্রথম মৃত্যু বার্ষিকী পালিত

চুয়াডাঙ্গায় ‘সোহরাব হোসেন স্মৃতি সংসদ’ এর উদ্যোগে ও জেলা শিল্পকলা একাডেমীর সহযোগিতায় আলোচনাসভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে চুয়াডাঙ্গার কৃতীসন্তান উপ মহাদেশের প্রখ্যাত নজরুল সঙ্গীতের শুদ্ধ  শিল্পী সোহরাব হোসেনের প্রথম মৃত্যু বার্ষিকী পালিত হয়েছে।

মৃত্যু বার্ষিকী উপলক্ষে গতকাল শুক্রবার সন্ধা ৭টায় জেলা শিল্পকলা একাডেমীর হলরুমে প্রথমে আলোচনাসভা ও পরে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। শিল্পী শরিফ উদ্দিন বিশ্বাসের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মল্লিক সাইদ মাহবুব। বিশেষ অতিথি ছিলেন ‘সোহরাব হোসেন স্মৃতি সংসদের আহ্বায়ক ও সাংবাদিক এম এ মামুন, সাংবাদিক মানিক আকবর, জেলা শিল্পকলা একাডেমীর যগ্মআহ্বায়ক আব্দুস ছালাম তারা, আলী আশরাফ প্রমুখ।

প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, প্রখ্যাত নজরুল শিল্পী সোহরাব হোসেনের কাছে আমাদের শিল্পী সমাজ ঋনি। সোহরাব সাহেব শুধু চুয়াডাঙ্গার কৃতীসন্তান নয় তিনি গোটা উপমহাদেশের শিল্পী। আলোচনা শেষে সঙ্গীত পরিবেশন করেন মিম, লক্ষ্মী, রিফা, জেরিন, রাব্বি, অন্তু, শাওন ও আতশি।

দর্শনা অফিস জানিয়েছে, দেশ বরণ্য কিংবদন্তী নজরুল গীতি শিল্পী সোহরাব হোসেনের প্রথম মৃত্যু বার্ষিকী পালিত হয়েছে। ব্যাপক আয়োজনের মধ্যদিয়ে দিনটি পালন করা হয়। ‌‌‌‘স্মৃতি মুখর আজ সোহরাবে, বাজে নজরুল গৌরবে’ মুন্সি কবির এ প্রতিবাদ্যকে ধারণ করে গতকাল শুক্রবার সকাল ১০টার দিকে দর্শনা অনির্বাণ থিয়েটার কার্যালয় চত্ত্বর থেকে সোহরাব হোসেন স্বরণে র‌্যালী বের হয়। র‌্যালীটি শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে। পরে অনির্বাণ থিয়েটার মঞ্চে অনুষ্ঠিত হয় স্মরণসভা। দর্শনা ওমেন্স ক্লাব, সুর-সাধনা, অনির্বাণ থিয়েটার ও গণউন্নয়ন গ্রন্থাগারের যৌথ আয়োজনে দর্শনা অনির্বাণ থিয়েটার মঞ্চে সোহরাব স্বরণে আলোচনাসভা, নৃত্য ও নজরুল সংগীত পরিবেশিত হয়। সভাপতিত্ব করেন অনির্বাণ থিয়েটারের কার্যনিবার্হী সদস্য প্রেসক্লাব দর্শনার সভাপতি আওয়াল হোসেন। সোহরাব স্বরণে স্মৃতিচারণ করেন প্রয়াত সোহরাব হোসেনের ভাইয়ের ছেলে মোজ্জাফর হোসেন ফারুক, ওমেন্স ক্লাবের সভানেত্রী রানী শাহ, দর্শনা গণউন্নয়ন গ্রন্থাগারের পরিচালক আবু সুফিয়ান, রাজনৈতিক নেতা শফিকুল ইসলাম সাবু প্রমুখ। এরপর নজরুল সংগীতের তালে তালে নৃত্য পরিবেশন করেন সুর-সাধনার শিল্পী বৃন্দ। কবি কাজী নজরুল ইসলামের কবিতা আবৃতি করেন মুন্সি কবিরুল হক ও স্বপ্না খাতুন। আবৃতি শেষে নজরুল সংগীত পরিবেশন করেন স্থানীয় শিল্পী বৃন্দ। অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন অনির্বাণ সদস্য সাজ্জাদ হোসেন ও মিল্টন কুমার শাহা।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *