দামুড়হুদা উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান জামায়াত নেতা কাদের সাময়িক বরখাস্ত

 

দর্শনা অফিস: দামুড়হুদা উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ও দর্শনা পৌর জামায়াতের আমির মো. আব্দুল কাদেরকে অস্ত্র ও বিস্ফোরক আইনের মামলায় চার্জশিট প্রদানের সাড়ে ৯ মাস পর স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করা হয়েছে। গত ১৩ মে রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদের পক্ষে সিনিয়র সহকারী সচিব ড. জুলিয়া মঈন স্বাক্ষরিত পত্রটি গত বৃহস্পতিবার বিকেলে দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা প্রদান করেন। পত্রে উল্লেখ করা হয়েছে, তার বিরুদ্ধে এসটিসি-১৬৫/১৫ মামলার অভিযোগপত্র আদালত কর্তৃক গৃহীত হওয়ায় সাময়িক বরখাস্ত করা হলো।

উল্লেখ্য, গত বছর সরকারবিরোধী আন্দোলন চলাকালে তৎকালীন দামুড়হুদা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শিকদার মশিউর রহমান জামায়াতের উপজেলা পর্যায়ের সকল নেতাকে অন্তর্ভুক্ত করে ১৯৭৮ সালের অস্ত্র আইনে ও ১৯০৮ সালের বিস্ফোরক আইনে মামলা রুজু করেন। গত ৮ আগস্ট এ মামলার তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন তদন্ত কর্মকর্তা। আ. কাদেরকে ১৬ সেপ্টেম্বর গ্রেফতার করে পরদিন আদালতে সোপর্দ করে পুলিশ। চলতি বছরের ২৭ জানুয়ারি সাড়ে ৪ মাস পর হাইকোর্টের আদেশে জামিনে মুক্তি পান আব্দুল কাদের। সর্বশেষ গত বৃহস্পতিবার ওই মামলার দাখিলকৃত চার্জশিটের কারণ দেখিয়ে তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। আব্দুল কাদের জানান, তিনি জামায়াতের রাজনীতি করার কারণে মামলার শিকার। মামলার সত্যতা তো দূরে থাক, জীবনে কখনো অস্ত্র কিংবা বিস্ফোরকদ্রব্য ছুঁয়েও দেখিনি। আব্দুল কাদের আইনি পথে হাঁটবেন বলেও জানিয়েছেন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *