দর্শনায় ফেনসিডিল ও গাঁজাসহ দুজন গ্রেফতার

 

দর্শনা অফিস: দর্শনা আইসি পুলিশ মাদকবিরোধী পৃথক দুটি অভিযান চালিয়ে উদ্ধার করেছে ফেনসিডিল ও গাঁজা। গ্রেফতার করেছে অভিযুক্ত দু মাদক কারবারীকে। তাদের বিরুদ্ধে পুলিশ মামলা দায়ের করেছে। গতকাল রোববার সকাল ৮টার দিকে দর্শনা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ এসআই মিজানুর রহমান গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে মাদকবিরোধী অভিযান চালান দর্শনা-জীবননগর মহাসড়কের রশিক শাহ’র মাজারের সামনে। পুলিশ ওই স্থান থেকে গ্রেফতার করেছে দর্শনা পৌর শহরের মোহাম্মদপুরের আলী আকবরের ছেলে হাসান (৩২) ও দর্শনার পার্শ্ববর্তী আকন্দবাড়িয়া স্কুলপাড়ার তারু মিয়ার ছেলে নাজিমকে (২৯)। পুলিশ বলেছে, গ্রেফতারকৃতদের কাছ থেকে উদ্ধার করা হয় ৪০ বোতল ফেনসিডিল। এ ঘটনায় এসআই মিজানুর রহমান বাদী হয়ে গতকালই হাসান ও নাজিমের বিরুদ্ধে দামুড়হুদা থানায় দায়ের করেছেন মামলা।

এদিকে একই সময় দর্শনা আইসি পুলিশের এএসআই হাদিউজ্জামান গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে মাদকবিরোধী অভিযান চালান দর্শনা পৌর শহরের ঈশ্বরচন্দ্রপুর গোরস্তানপাড়ায়। পুলিশ বলেছে, গোরস্তানপাড়ার আখের আলীর ছেলে আছের আলীর বাড়িতেতল্লাশি চালিয়ে উদ্ধার করা হয় আড়াইশ গ্রাম গাঁজা। তবে কাউকে গ্রেফতার করতে না পারলেও এএসআই হাদিউজ্জামান বাদী হয়ে গতকালই দামুড়হুদা থানায় আছের আলীর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন।

অপরদিকেদর্শনা বিজিবি সদস্যরা মাদকবিরোধী অভিযান চালিয়ে প্রচুর পরিমাণ ফেনসিডিল উদ্ধার করতে পারলেও মাদককারবারীচক্রের কোনো সদস্যকে আটক করতে পারেনি। গতকাল রোববার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে দর্শনা বিজিবি ক্যাম্পের হাবিলদার আব্দুল করিম গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সঙ্গীয় সদস্যদের নিয়ে মাদকবিরোধী অভিযান চালান দামুড়হুদা উপজেলার কুড়ুলগাছি ইউনিয়নের প্রতাপপুর মাঠে। বিজিবির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, অভিযানকালে মাদককারবারীরা ফেনসিডিল ফেলে পালিয়ে যায়। প্রতাপপুর মাঠের শহীদের আমবাগান থেকে উদ্ধার করা হয়েছে ৯শ ৫৬ বোতল ফেনসিডিল। অভিযোগ উঠেছে, উপজেলার পারকৃষ্ণপুর-মদনা ইউনিয়নের নাস্তিপুরের কায়দার আলীর ছেলে ইয়াস উল্লাহ ও একই পাড়ার ফনা মিয়ার ছেলে এনামুল ফেনসিডিল চালানের হোতা। এ চালানে ফেনসিডিলের পরিমাণ ছিলো প্রায় ২ হাজার বোতল।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *