ঝিনাইদহে ফের ‘জঙ্গি আস্তানায়’ অভিযান, নিহত ২

ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার বজ্রাপুর গ্রামে ‘জঙ্গি আস্তানায়’ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর অভিযানে দুই ‘জঙ্গি’ নিহত হয়েছেন। শনিবার রাতে ওই গ্রামের একটি বাড়ি জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে ঘিরে ফেলে জেলা পুলিশ ও পুলিশের কাউন্টার টেররিজম ইউনিটের সদস্যরা। এ ঘটনায় গুলিবিদ্ধ হয়েছেন একজন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার। এ ছাড়া আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর দুই সদস্য আহত হয়েছেন বলে আজ রবিবার সকালে জানিয়েছেন মহেশপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি)  আহম্মেদ কবির। ওসি জানান, জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে বাড়িটি ঘিরে রাখার পর জঙ্গিরা পরপর চারটি বোমার বিস্ফোরণ ঘটায়। এতে দুই জঙ্গি নিহত হন। এছাড়া কাউন্টার টেরোরিজমের এসপি নাজমুল হাসান, এস.আই মজিবুর রহমান ও ডিএসবির এস আই মহসিন গুরুতর আহত হয়েছেন। এ সময় একতলা ঐ বাড়ির মালিক জহুরুল ইসলাম, তার ছেলে জসিম ও বাড়ির ভাড়াটিয়া আলমসহ চারজনকে আটক করা হয়েছে। সাংবাদিকদের নিরাপদ দূরত্বে অর্থাৎ ৫শ গজ দূরে অবস্থান থাকতে বলা হয়েছে। এ ছাড়া আশপাশে বসবাসকারীদেরকেও দূরত্বে থাকতে বলা হয়েছে। জঙ্গি আস্থানার আশেপাশে ১৪৪ ধারা জারি করেছে স্থানীয় প্রশাসন।

এর আগে গত ২১ এপ্রিল সন্ধ্যা থেকে ঝিনাইদহ সদর উপজেলার পোড়াহাটি গ্রামের ঠনঠনিপাড়ার ‘জঙ্গি’ আবদুল্লাহ ওরফে প্রভাতের বাড়ি ঘিরে রাখে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। পরদিন সেখানে অভিযান চালানো হয়। কিন্তু কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনি। দুই দিনের অভিযান শেষে ওই জঙ্গি আস্তানা থেকে বিপুল পরিমাণ বিস্ফোরক ও বোমা তৈরির সরঞ্জাম উদ্ধার করা হলেও সেখানে কাউকে পাওয়া যায়নি।

 

 

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *