ঝিনাইদহের মহেশপুরে যৌতুকের দাবিতে স্বামীর নির্যাতনে স্ত্রী নিহত, স্বামী ও শাশুড়ী আটক

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি, ১৭ জুলাই ঃ

ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার ইর্শালডাঙ্গা গ্রামে যৌতুকের দাবিতে স্বামীর নির্যাতনে সাগরিকা বেগম (২১) নামের এক গৃহবধু নিহত হয়েছেন। তিনি ওই গ্রামের শরিফুল ইসলামের স্ত্রী। পুলিশ এ ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে স্বামী শরিফুল ইসলাম ও শাশুড়ী পিয়ারা বেগমকে আটক করেছে।

মহেশপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শাহজাহান আলী জানান, মহেশপুর উপজেলার সামন্তা গ্রামের নাসির উদ্দিন ব্যাপারীর মেয়ে সাগরিকা বেগমের সাথে ১১ মাস আগে একই উপজেলার ইর্শালডাঙ্গা গ্রামের শফিকুল ইসলামের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকেই স্বামী শফিকুল যৌতুকের জন্য স্ত্রীর উপর নির্যাতন করে আসছিল। গত ৭ জুলাই স্বামীর নির্যাতনে স্ত্রী সাগরিকা মারাত্মকভাবে আহত হন। বুধবার মহেশপুর উপজেলা স্বাস্থ কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হলে আজ বৃহস্পতিবার সকাল ১১ টার দিকে তিনি মারা যান।

সাগরিকার পিতা নাসির উদ্দিন মহেশপুর থানায় অভিযোগ দায়ের করলে ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে স্বামী শফিকুল ও শাশুড়ি পিয়ারা বেগমকে আটক করেছে পুলিশ। লাশ ময়না তদন্তের জন্য ঝিনাইদহ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

Leave a comment

Your email address will not be published.