ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে মোচিক চাষিদের বকেয়া টাকার দাবিতে মাইকিং করে ঘেরাও কর্মসূচি ঘোষণা

কালীগঞ্জ প্রতিনিধি: ঝিনাইদহ কালীগঞ্জ মোবারকগঞ্জ চিনি কলের কৃষকরা আখ বিক্রির পাওনা টাকার দাবিতে আবারও আখ চাষি কল্যাণ সমিতি বিক্ষোভ এবং ঘেরাও বিভিন্ন কর্মসূচির ঘোষণা করেছে। রোববার সকাল ১০টায় চিনিকলের অফিস ঘেরাও এবং বিক্ষোভ করে কৃষকদের আখ বিক্রির পাওনা টাকা আদায়ের দাবি করা হবে। মোচিকের আখ চাষি কল্যাণ সমিতির সাধারণ সম্পাদক মাসুদুর রহমান মন্টু বলেন, মোচিকের প্রায় ৪ হাজার কৃষক আখ বিক্রি করে তারা টাকা পাচ্ছে না। কৃষকরা এখন প্রায় ১১ কোটি টাকা পাবে চিনিকলের কাছে। কিন্তু কৃষকদের পাওনা টাকা নিয়ে কর্মকর্তারা আমলে নিচ্ছে না। পাওনা টাকার জন্য কৃষকরা চিনিকলের কর্মকর্তাদের কাছে গেলে জানিয়ে দেয়া হচ্ছে চিনি বিক্রি না হওয়ার কারণে টাকা দেয়া সম্ভব হচ্ছে না। গত বছরের উৎপাদনের চিনি অবিক্রি রয়েছে ২ হাজার ৫শ’ কোটি টাকার। এ বছরের উৎপাদনের চিনি তো সবই রয়েছে। গত ৬ মার্চ মোবারকগঞ্জ চিনি কলটি মাড়াই কার্য দিবস শেষ হয়। গত মাড়াই মরসুমে চিনিকল কর্তৃপক্ষ কৃষকদের আখ বিক্রির মাত্র ২ কোটি টাকা প্রদান করেছে। এখনও পাওনা রয়েছে প্রায় ১১ কোটি টাকা। আর এ টাকা কৃষকরা কবে পাবে তার কোনো নিশ্চয়তা দিতে পারছে না মিল কর্তৃপক্ষ। প্রতিদিন বিভিন্ন এলাকা থেকে মিলে আখ বিক্রির পাওনা টাকার জন্য কৃষকরা মিলে এসে ভিড় করছে আর কর্মকর্তাদের সাথে ঝগড়া করছে। কিন্তু মিল কর্তৃপক্ষ বিষয়টি কোনো প্রকার আমলে নিচ্ছে না। এদিকে মোবারকগঞ্জ চিনিকলের কর্মকর্তা, শ্রমিক ও কর্মচারী রয়েছে প্রায় ১১শ’। তারা গত জানুয়ারি মাস থেকে বেতন ভাতা পাচ্ছে না। প্রায় ৩ মাস বেতন ভাতা না পেয়ে পরিবার পরিজন নিয়ে মানবেতর জীবনযাপন করছে। এর আগে মোচিক শ্রমিক ইউনিয়ন তাদের বেতন ভাতা ও অন্যান্য পাওনাদির জন্য মোচিকে গেট মিটিং করেছে। কিন্তু কর্তৃপক্ষের গাফলতির কারণে তাদের বেতন ভাতা ও কৃষকদের পাওনা টাকা দিচ্ছে না।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *