চুয়াডাঙ্গা শান্তিপাড়ার সুমনকে ঢাকার পঙ্গু থেকে নেয়া হয়েছে ক্রিসেন্ট হাসপাতালে

রগই শুধু কাটা হয়নি কিডনিতেও হয়েছে ছুরিকাঘাত

 

স্টাফ রিপোর্টার: দু পায়ের রগ কাটাসহ ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে ক্ষতবিক্ষত করা সুমনকে ঢাকার পঙ্গু হাসপাতাল থেকে ক্রিসেন্ট হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। সেখানে গতকাল তার একটি হাত ও একটি পায়েসহ কিডনিতে অপারেশন করা হয়েছে। তার নিকটজনেরা এ তথ্য জানিয়ে বলেছেন, সুমনের অপর পায়ে অস্ত্রোপচার করা হবে পরে।

গতপরশু সন্ধ্যা ৭টার দিকে চুয়াডাঙ্গা কোর্টমোড়ের একটি দোকান থেকে ধারালো অস্ত্রের মুখে অপহরণ করা হয় সুমনকে। তাকে চুয়াডাঙ্গা পানি উন্নয়ন বোর্ড এলাকায় নিয়ে ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে ও দু পায়ের রগ পোচ মেরে কেটে ফেলে রাখা হয়। পরে খবর পেয়ে তারই পিতা চুয়াডাঙ্গা মুসলিমপাড়া-শান্তিপাড়ার রুহুল আমিন উদ্ধার করে হাসপাতালে নেন। রাতেই তাকে ঢাকায় নেয়া হয়। তার নিকটজনেরা বলেছেন, সুমনকে (২০) ঢাকার পঙ্গু হাসপাতালে নেয়া হলে কিডনিতে বড় ধরনের ক্ষত শনাক্ত করে ঢাকা মেডিকেল কলেজে হাসপাতালে নেয়ার পরামর্শ দেয়া হয়। সেখানে নিয়ে তেমন সুবিধা নিশ্চিত করা যাবে কি-না তা নিয়ে সন্দেহ দেখা দিলে ক্রিসেন্ট হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করানো হয়েছে। কিডনিসহ এক হাত ও এক পায়ের অপারেশন গতকালই সম্পন্ন করা হয়েছে। অপর পায়ের অপারেশন দু একদিনের মাথায় করা হতে পারে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *