চুয়াডাঙ্গা-মেহেরপুরে মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার ও পাচারবিরোধী আন্তর্জাতিক দিবস পালিত

 

স্টাফ রিপোর্টার:‘মাদকাসক্তি প্রতিরোধ ও নিরাময় যোগ্য’এ প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে চুয়াডাঙ্গায় মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার ও পাচারবিরোধী আন্তর্জাতিক দিবস উপলক্ষে বর্ণাঢ্য ৱ্যালি ও আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসন ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের আয়োজনে গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৯টায় জেলা প্রশাসকের কার্যালয় থেকে একটি বর্ণাঢ্য ৱ্যালি বের হয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে এসে শেষ হয়। ৱ্যালি শেষে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আনজুমান আরার সভাপতিত্বে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক মো. দেলোয়ার হোসাইন। বিশেষ অতিথি ছিলেন ৬ বর্ডারগার্ড ব্যাটালিয়ন চুয়াডাঙ্গার পরিচালক লে. কর্নেল এসএম মনিরুজ্জামান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মল্লিক সাঈদ মাহাবুব, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সালেহ উদ্দিন ওপৌর মেয়র রিয়াজুল ইসলাম জোর্য়াদ্দার টোটন। আলোচনাসভায় আরো বক্তব্য রাখেন মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের পরিদর্শক লাকিয়া খানম, চুয়াডাঙ্গা সরকারি কলেজের সহকারী অধ্যাপক জাহিদুল ইসলাম, সেভ দ্য চিলড্রেনের সমন্বয়কারী সাইদুর রহমান মাতুব্বর প্রমুখ। অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সৈয়দা নাফিস সুলতানা।

অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি জেলা প্রশাসক মো. দেলোয়ার হোসাইন বলেন, মাদকমুক্ত করতে ছাত্রসমাজকে এগিয়ে আসার পাশাপাশি সমাজের সকলকে সচেতন হতে হবে এবং মাদক প্রতিরোধে সামাজিক আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে। মাদকের হাত থেকে দেশকে বাঁচাতে হলে পরিবার থেকেই শিশুদের মাদকের কুফল সম্পর্কে ধারণা দিয়ে সচেতন করে তুলতে হবে।আমরা যদি প্রত্যেকেই সচেতন থাকি তাহলেই মাদকের অপব্যবহার ও পাচাররোধ করা সম্ভব। মাদকপাচার সামাজিক ব্যাধিতে পরিণত হয়েছে। মাদক গ্রহণকারীর পাশাপাশি পরিবার ও সমাজের ক্ষতি হচ্ছে। সহজলভ্যতার কারণে মাদকসেবীরা গাঁজা ও ফেনসিডিল সেবন করছে। সেজন্য জনসাধারণ যদি সহযোগিতা করে তবেই সম্ভব নিয়ন্ত্রণ করা।

এদিকে বিজিবি এক প্রেসবিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, গতকাল বৃহস্পতিবার মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার ও অবৈধ পাচারবিরোধী আন্তর্জাতিক দিবস পালনের জন্য ৬ বর্ডারগার্ড ব্যাটালিয়নের অধীনস্থ বাঘাডাংগা, শ্যামকুড়, শ্রীনাথপুর, কুসুমপুর, বেনীপুর, জীবননগর, মেদেনীপুর, নতুনপাড়া, গয়েশপুর, ধোপাখালী, রাজাপুর, উথুলী, নিমতলা, দর্শনা, সুলতানপুর, বারাদি, মদনা, ফুলবাড়ী, ঠাকুরপুর, মুন্সিপুর, জগন্নাথপুর, আনন্দবাস এবং মুজিবনগর বিওপির সার্বিক তত্ত্বাবধানে স্থানীয় জনসাধারণ ও গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের উপস্থিতিতে মাদকবিরোধী আলোচনাসভা ও ৱ্যালি পরিচালনা করা হয়।

কার্পাসডাঙ্গা প্রতিনিধি জানিয়েছেন,মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার ও পাচারবিরোধী আন্তর্জাতিক দিবস উপলক্ষে বর্ণাঢ্য ৱ্যালি ও সচেতনতামূলক সভা গতকাল বৃহস্পতিবার মুন্সিপুর বিজিবি ক্যাম্পের আয়োজনে অনুষ্ঠিত হয়েছে। বিজিবি ক্যাম্পের হাবিলদার আব্দুল মতিনের নেতৃত্বে ৱ্যালিটি মুন্সিপুর কুতুবপুর গ্রাম প্রদক্ষিণ করে বিজিবি ক্যাম্পে এসে শেষ হয়। ৱ্যালিতে মুন্সিপুর ও কুতুবপুর গ্রামের শতাধিক সচেতন ব্যক্তি অংশগ্রহণ করেন।

দর্শনা অফিস জানিয়েছে, সীমান্তে মাদক, চোরাচালান, নারী ও শিশু পাচার রোধে জনসচেতনতামূলক ৱ্যালি ও আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় চুয়াডাঙ্গা-৬ বর্ডারগার্ডের আয়োজনে দর্শনা বিজিবি ক্যাম্প থেকে একটি ৱ্যালি বের করে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করেছে। পরে বিজিবি ক্যাম্পে অনুষ্ঠিত আলোচনাসভায় মাদক প্রতিরোধ বিষয়ক আলোচনা করেন, ক্যাম্প ইনচার্জ নায়েক সুবেদার আবু তাহের, হাবিলদার আলী হোসেন, দর্শনা প্রেসক্লাবের সভাপতি হানিফ মন্ডল, সাজাহান মোল্লা, প্রকাশ, সাগর প্রমুখ।

মেহেরপুর অফিস জানিয়েছে,‘ মাদকাসক্তি প্রতিরোধ ও নিরাময়যোগ্য’এ প্রতিপাদ্য বিষয়কে সামনে রেখে মেহেরপুরে মাদক দ্রব্যের অপব্যবহার ও অবৈধ পাচার বিরোধী আন্তর্জাতিক দিবস পালিত হয়েছে। এ উপলক্ষে মেহেরপুর শহরে ৱ্যালি ও জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। মেহেরপুর জেলা প্রশাসন ও জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের যৌথ উদ্যোগে গতকাল বৃহস্পতিবার বেলা ১০টার সময় জেলা শিল্পকলা একাডেমির সামনে থেকে একটি ৱ্যালি বের হয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে। জেলা প্রশাসক মাহমুদ হোসেন ৱ্যালির নেতৃত্ব দেন। বিভিন্ন স্কুল-কলেজের শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও বিভিন্ন এনজিওর কর্মকর্তা-কর্মচারীরা ৱ্যালিতে অংশগ্রহণ করেন। ৱ্যালিটি জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষের সামনে এসে শেষ হয়। পরে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) হেমায়েত হোসেনের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক মাহমুদ হোসেন। সভায় মাদকদ্রব্যের কুফল তুলে ধরে মাদকের ভয়াবহতা থেকে রক্ষা পেতে সবাইকে এগিয়ে আসার আহবান জানিয়ে বক্তব্য রাখেন জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের ইন্সপেক্টর গোলাম রাব্বানী, মেরেহরপুর সরকারি কলেজের সহযোগী অধ্যাপক আব্দুল্লাহ আল মামুন প্রমুখ।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *