চুয়াডাঙ্গায় সংসদ নির্বাচনে দুটি আসনে চার প্রার্থীর মাঝে প্রতীক বরাদ্দ

স্টাফ রিপোর্টার: দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মনোনায়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ দিনে চুয়াডাঙ্গার দুটি আসনে প্রার্থীর সংখ্যা ৪ জনে দাঁড়ালো। গতকাল শুক্রবার বিকেল পাঁচটায় রিটার্নিং অফিসার জেলা প্রশাসক মো. দেলোয়ার হোসাইন প্রার্থীদের মধ্যে প্রতীক বরাদ্দ করেন।

এরা হলেন- চুয়াডাঙ্গা-১ আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীতপ্রার্থী বর্তমান সংসদ সদস্য সোলায়মান হক জোয়ার্দ্দার ছেলুন (নৌকা) এবং জাসদ (ইনু) মনোনীত প্রার্থী সবেদ আলী (মশাল)। চুয়াডাঙ্গা-২ আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীত বর্তমান সংসদ সদস্য আলী আজগার টগর (নৌকা) এবং ওয়ার্কার্স পার্টি মনোনীত সিরাজুল ইসলাম শেখ (হাতুড়ি।)

চুয়াডাঙ্গা-২ আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীতপ্রার্থী বর্তমান সংসদ সদস্য আলী আজগার টগরের পক্ষে নৌকা প্রতীক গ্রহণ করেন আওয়ামী লীগ নেতা আলী মুনসুর বাবু, গোলাম ফারুক আরিফ ও ইউপি চেয়ারম্যান এসএম জাকারিয়া আলম। চুয়াডাঙ্গা-১ আসনে জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল-জাসদ (ইনু) সমর্থিত সবেদ আলীর পক্ষে মশাল প্রতীক গ্রহণ করেন জাসদের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. আকসিজুল ইসলাম রতন ও দলীয় নেতাকর্মীরা।

এবারের নির্বাচনে চুয়াডাঙ্গার দুটি আসনে ১০ জন প্রার্থী মনোনায়নপত্র দাখিল করেন। তার মধ্যে আওয়ামী লীগের ৩ বিদ্রোহী প্রার্থী স্বতন্ত্র হিসেবে চুয়াডাঙ্গা-১ আসনে শেখ শামসুল আবেদীন খোকন, চুয়াডাঙ্গা-২ আসনে মতিয়ার রহমান ও মীর্জা শাহরিয়ার মাহমুদ লন্টুর শতকরা একভাগ ভোটার সংক্রান্ত সমস্যা এবং এসএম মঞ্জুর-উল-করিম রুবেল জেপি-(মঞ্জু)’র হলফনামা দাখিল না করার কারণে মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা করেন রিটার্নিং অফিসার জেলা প্রশাসক মো. দেলোয়ার হোসাইন। মনোনয়নপত্র বাতিলকৃত চার প্রার্থী প্রধান নির্বাচন কমিশনার বরাবর আপিল আবেদন করলেও শুনানি শেষে তা না মঞ্জুর করা হয়।

এছাড়া দুটি আসনে জাতীয় পার্টির (এরশাদ) মনোনীত চুয়াডাঙ্গা-১ আসনে অ্যাড. সোহরাব হোসেন ও চুয়াডাঙ্গা-২ আসনে আকবর আলী মনোনায়নপত্র প্রত্যাহার করে নেন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *