চিলির বিরুদ্ধে ঘামঝরানো ম্যাচ ১-১ সমতার পর অতিরিক্ত সময়েও শ্বাসরুদ্ধকর : টাইব্রেকারে শেষ আটে ব্রাজিল

 

স্টাফ রিপোর্টার: দ্বিতীয় পর্ব পাড়ি দিতে ভালোই বেগ পোহাতে হলো স্বাগতিক ব্রাজিলকে। চিলিরবিরুদ্ধে জয় পেতে তাদের অপেক্ষা করতে হলো পেনাল্টি পর্যন্ত। পেনাল্টিরফলাফল ব্রাজিল ৩-২ চিলি।১-১ গোলে সমতায় থাকা ম্যাচ টাইব্রেকারে গড়ানোর পর মুরিসিও পিনিইয়া ওআলেক্সিস সানচেসের প্রথম দুটি শট ঠেকিয়ে দেন সেজার। গনসালো হারার শেষ শটবারে লেগে ফিরলে শেষ আট নিশ্চিত হয়ে যায় ব্রাজিলের।পাঁচবারেরচ্যাম্পিয়নদের পক্ষে লক্ষ্যভেদ করেন দাভিদ লুইস, মার্সেলো ও নেইমার। বাইরেমারেন উইলিয়ান। আর হাল্কের শট ঠেকিয়ে খেলায় নখ কামড়ানো উত্তেজনা এনে দেনচিলির ক্লদিও ব্রাভো।নির্ধারিত ৯০ মিনিটের খেলা শেষে দুদলই সমতায় থাকলে অতিরিক্ত ৩০ মিনিটেও গোলের দেখা পায়নি কোনে দলই।তবে ১১৮ মিনিটের মাথায় সানচেজের বল গোলবারে লেগে ঘুরে না এলে হয়তবাদ্বিতীয় পর্বেই লেখা হতো স্বাগতিকদের বিদায় নামা।

দ্বিতীয় পর্বের (নক আউট পর্ব) প্রথম ম্যাচে মুখোমুখি হয় লাতিন আমেরিকার শক্তিশালী দলদুটি। খেলার ১৮ মিনিটের মাথায় নেইমারের তোলা একটি কর্নার থেকে চিলির জালেবল জড়ান ডেভিড লুইস। শনিবার রাতে বেলে হরিজোন্তে খেলাটি অনুষ্ঠিত হয়েছে।বেলেহরিজোন্তের মিনেরোর মাঠে ফেভারিটের তকমা নিয়ে মাঠে নেমেছিলো ব্রাজিল। ১৯মিনিটে নেইমারের কর্নার থিয়েগো মাথা ছুঁয়ে বলটা নামিয়ে দেন। ডেভিড লুইস পাবাড়িয়ে বল জালে জড়ান। মিনেরোর গ্যালারিতে ওঠে বইতে থাকে আনন্দের জোয়ার।১৩ মিনেটেই সেটা থেমে যায়। রক্ষণভাগের ভুল পাসে বল পান চিলির সানচেজ।নেইমার ভালো করেই জানেন সাচেজ বল পেলে কি করতে পারেন। কারণ সানচেজবার্সেলোনায় নেইমারের অ্যাটাকিং পার্টনার। দূর থেকে নেইমার দেখলেন সানচেজব্রাজিল অধিনায়ক থিয়েগোকে জায়গায় দাঁড়িয়ে ডজ দিয়ে নিচু শটে গোল করলেন১-১।এরপর আর কোনো গোলের দেখা পায়নি কোনো দলই।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *