উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের বিএ/বিএসএস পরীক্ষায় নকল করার অপরাধে ২৮ পরীক্ষার্থী বহিষ্কার

 

স্টাফ রিপোর্টার:উম্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের আওতায় বিএ/বিএসএস পরীক্ষায় চুয়াডাঙ্গা পৌর ডিগ্রি কলেজ কেন্দ্রে ও দামুড়হুদা পরীক্ষা কেন্দ্রে অসুদোপায়ের দায়ে ২৮ জন পরীক্ষার্থীকে বহিষ্কার করা হয়েছে। এর মধ্যে পৌর ডিগ্রি কলেজের ২১ জন ও দামুড়হুদা আব্দুল ওদুদ শাহ ডিগ্রি কলেজ কেন্দ্রে ৭ জনকে বহিষ্কার করা হয়। চুয়াডাঙ্গা পৌর ডিগ্রি কলেজে বহিষ্কৃতরা বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করলে পুলিশি হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি শান্ত হয়।

জানা গেছে, চুয়াডাঙ্গা পৌর ডিগ্রি কলেজে অসুদপায় অবলম্বন করায় ২১জন শিক্ষার্থীকে বহিষ্কার করেছে পরীক্ষায় দায়িত্বপ্রাপ্ত ম্যাজিস্ট্রেট মো. মুনিবুর রহমান। বহিষ্কারকৃত শিক্ষার্থীরা একজোট হয়ে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির চেষ্টা করলে পুলিশের উপস্থিতিতে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়।গতকাল শুক্রবার চুয়াডাঙ্গা পৌর ডিগ্রি কলেজে উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্তর্গত বিএ-বিএসএস পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। দু শিফটে অনুষ্ঠিত এ পরীক্ষায় সকালে বাংলা ও বিকেলে ইসলামি স্টাডিজ পরীক্ষায় অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থীদের মধ্যে অসুদপায় অবলম্বন করার কারণে সকালের শিফটে ৬ জন ও বিকেলের শিফটে ১৬ জনকে বহিষ্কার করেন দায়িত্বপ্রাপ্ত ম্যাজিস্ট্রেট মো. মুনিবুর রহমান।বহিষ্কারকৃত শিক্ষার্থীরা বহিষ্কার আদেশ বাতিলের জন্য একজোট হয়ে চিৎকার চেঁচামেচি করে কলেজ ক্যাম্পাসের ভেতর বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির চেষ্টা করে। পরে পুলিশ পরিস্থিতি শান্ত করে।

দামুড়হুদা প্রতিনিধি জানিয়েছেন, দামুড়হুদায় উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের বিএ/বিএসএস পরীক্ষা চলাকালে নকল করার অপরাধে ৭ পরীক্ষার্থীকে বহিষ্কার করা হয়েছে। গতকাল শুক্রবার দামুড়হুদা আব্দুল ওদুদ শাহ ডিগ্রি কলেজে বিএ/বিএসএসবাংলা ভাষা-১ এবং ইসলামিক স্ট্যাডিজ-৩ পরীক্ষা চলাকালে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. ফরিদুর রহমান পরীক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শনে যান। তিনি ৭ জন পরীক্ষার্থীকে বই খুলে লেখার সময় হাতেনাতে ধরে বহিষ্কার করেন বলে জানান ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুল ওদুদ শাহ ডিগ্রি কলেজের প্রিন্সিপাল কামাল উদ্দিন আহমেদ। উল্লেখ্য, গতকাল মোট ১৭৯ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে ১৭৩ জন পরীক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *