ঈদকে সামনে রেখে ঝিনাইদহ গ্রামঅঞ্চলের পশুহাটে অজ্ঞানপাটির দোরাত্ম বেড়েছে : সর্বশান্ত হচ্ছে ব্যবসায়ীরা

ডাকবাংলা প্রতিনিধি: ঝিনাইদহ জেলার গ্রাম অঞ্চলের পশুহাটে সীমাহীনভাবে অজ্ঞানপাটির দোরাত্ম বেড়েছে। এতে করে সর্বশান্ত হচ্ছে ব্যবসায়ীরা। আতঙ্কিত হয়ে পড়ছে হাটে টাকা নিয়ে আসা ক্রেতা-বিক্রেতারা। নগদ টাকা নিয়ে বাজারে ঘোরা ফেরা ক্রেতা-বিক্রেতাদের জন্য অসুবিধা হয়ে পড়েছে।

জানা গেছে, বৈডাঙ্গা, বাজার গোপালপুর, গান্না, নগর বাতান, হরিণাকুণ্ডু, শৈালকুপা, ভাইট, কালীগঞ্জ, মহেশপুর, কোটচদপুর, ঝিনাইদহ পশুহাটে অজ্ঞানপাটির দোরাত্ম বেড়েছে। অজ্ঞানপাটির সদস্যরা আনাগোনা করছে সব সময়। যেকোনো সময় দুর্ঘটনা ঘটতে পারে।

বৈডাঙ্গা হাটের একজন ছাগল ব্যবসায়ী জানান, জেলার প্রতিটি পশুহাটে এদের আনাগোনা বৃদ্ধি পেয়েছে। তবে বড় ধরনের দুর্ঘটনা এখনো ঘটেনি।  মনির জানান, হাটমালিকলরা সজাগ থাকলে অজ্ঞানপাটির সদস্যরা হাটে নামতে পারবে না। বসির জানান, ঈদকে সামনে রেখে হাটে পুলিশের নজর দারি বাড়ালে এমন ঘটনা অনেক অংশে কমে যাবে। অজ্ঞানপাটির সম্পর্কে মাইকিং করে সচেতনা বৃদ্ধি করতে হবে হাটে।

উল্লেখ্য, গত শনিবার চুয়াডাঙ্গা বদরগঞ্জ বাজারে ৫ জনকে অজ্ঞান করে প্রায় ৫ লাখ টাকা নিয়ে গেছে। এছাড়া আলমডাঙ্গার মুনসিগঞ্জ থেকে ৫ গরুব্যাবসায়ীর কাছ থেকে প্রায় ৬ লাখ টাকা হাতিয়ে নেই অজ্ঞানপাটি। এলাকাবাসীর দাবি প্রশাসন ব্যাপক নজরদারী করলে এ ধরনের ঘটনা আর ঘটবে না।

Leave a comment

Your email address will not be published.