শাকিরাকে যেভাবে পটিয়েছিলেন পিকে

মাথাভাঙ্গা মনিটর: প্রথমেই একটা সংবিধিবদ্ধ সতর্কীকরণ। আপনি যদি বিলিয়নিয়ার ফুটবলার না হন, যে কিনা দেখতেও মন্দ নয়- তাহলে পিকে যে কথাটি শাকিরাকে বলেছিলেন, সেটি আপনার প্রেয়সীর মন গলানোর ক্ষেত্রে কাজে না-ও লাগতে পারে। সম্ভবত ‘পিক-আপ লাইনে’র ইতিহাসে এটিই সবচেয়ে নীরস বাক্য। কিন্তু সে যা-ই হোক, পিকের ক্ষেত্রে এটিই বেশ ভালো কাজে দিয়েছে। শাকিরার মন জেতার কাজটা তিনি শুরু করেছেন তিনি খুব সাধারণ একটি কথা বলে ‘এখানে আবহাওয়া কেমন?’ বর্তমান সময়ের সম্ভবত সবচেয়ে গ্ল্যামারাস জুটি পিকে-শাকিরা। বার্সেলোনা ও স্পেনের ডিফেন্ডার যেমন অনেক জনপ্রিয়, কলম্বিয়ান পপ তারকা শাকিরারও ভক্তের সংখ্যাও নেহাত কম নয়। তা দুজনের দেখা হয়েছিলো কীভাবে? মন দেয়া-নেয়ার কাজটিও কোন সংগোপনে হয়েছিলো, প্রথম কে কাকে কী বলেছিলেন, সেটি নিয়েও মানুষের আগ্রহ কম নয়। রহস্যটা এবার নিজেই ফাঁস করলেন পিকে। সময়টা ২০১০ বিশ্বকাপের ঠিক আগে। শাকিরার ‘ওয়াকা ওয়াকা’ গানটি তখন বিশ্বকাপ জ্বরের তাপমাত্রা বাড়িয়ে দিয়েছিলো কয়েক গুণ। গানটির ভিডিওতে অন্য অনেক ফুটবলারের সঙ্গে অংশ নিয়েছিলেন পিকেও। পরিচয়ও সেই সূত্রে। তবে এরপর ব্যাপারটা প্রণয়ে গড়াল কীভাবে, দুজনের প্রথম ‘ডেট’ কখন- টিভিথ্রিকে সেটিই বলেছেন পিকে, ‘শাকিরার সঙ্গে প্রথম দেখা হয়েছিলো মাদ্রিদে, যখন আমরা ২০১০ বিশ্বকাপের প্রস্তুতি নিচ্ছিলাম। এটা হয়েছিলো ওয়াকা ওয়াকার ভিডিওতে অংশ নেয়ার পর।’ তবে প্রথম দেখার জন্য শাকিরাকে রাজি করাতে যা বলেছিলেন, তা নিয়ে ভাবলে এখন আনমনেই হেসে ওঠার কথা পিকের, ‘ব্যাপারটা শুরু হয়েছিলো যখন আমরা দক্ষিণ আফ্রিকায় ছিলাম। আমিই ওকে লিখেছিলাম। ও আগে থেকেই সেখানে ছিলো, উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ওর গান-নাচ ছিলো। আর আমি ওকে জিজ্ঞেস করেছিলাম, ওখানকার আবহাওয়া কেমন!’

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *