মুশফিকের জন্মদিনে আইসিসির শুভেচ্ছা

 
বাংলাদেশ দলের হয়ে অভিষেকের পর থেকেই অবদান রেখে চলেছেন। শুধু ব্যাট হাতেই নয়, গ্লাভস হাতেও উইকেটের পেছনে মুশফিক এক নির্ভরতার নাম। পরিশ্রমের মধ্যদিয়ে নিজেকে আমূল বদলে ফেলেছেন এই উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান। তাই তো তার নামের পাশে ‘মিস্টার ডিপেন্ডেবল’ তকমা ভালোভাবেই জুড়ে গেছে। বলা হচ্ছে মুশফিকুর রহিমের কথা। মঙ্গলবার বাংলাদেশ টেস্ট অধিনায়কের জন্মদিন ছিল। সাধারণ ভক্তদের পাশাপাশি দলের সতীর্থদের শুভেচ্ছায় ভাসছেন ৩০ বছরে পা দেয়া মুশফিক। শুভেচ্ছা জানানো হয়েছে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিলের (আইসিসি) পক্ষ থেকেও।

সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ফেসবুকে আইসিসির অফিসিয়াল পেজ থেকে শুভেচ্ছাবার্তায় লেখা হয়েছে, ‘মাত্র ১৭ বছর বয়সে ২০০৫ সালে বাংলাদেশ ক্রিকেটে তার অভিষেক হয়। তিনি অন্যতম শ্রেষ্ঠ ক্রিকেটার হয়ে ওঠেন। তামিম ইকবাল ও সাকিব আল হাসানের আগেই বড় স্কোর করেন মুশফিক। সব ফরম্যাট মিলিয়ে বর্তমানে তিনি ৮১১০ রানের মালিক। শুভ জন্মদিন মুশফিকুর রহিম।’২০০৬ সালের ৬ আগস্ট হারারেতে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে জাতীয় দলের হয়ে ওয়ানডে ক্রিকেটে অভিষেক হয় মুশফিকের। অবশ্য তার আগেই ২০০৫ সালের ২৬ মে লর্ডসে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে তার। অভিষেকের পর সময়ের সঙ্গে সঙ্গে তার ব্যাট হয়েছে ধারালো। অভিষেকের সেই ১৭ বছরের কিশোর মুশফিকুর রহিম বর্তমান বাংলাদেশের সবচেয়ে নির্ভরযোগ্য ব্যাটসম্যান।
বাংলাদেশের হয়ে প্রথম ডাবল সেঞ্চুরিও তার। ২০১৩ সালে শ্রীলংকার বিরুদ্ধে গলে নিজের এবং দলের হয়ে প্রথম ডাবল সেঞ্চুরি করেন তিনি। এখন পর্যন্ত টেস্ট ক্যারিয়ারে একটি মাত্র ডাবল সেঞ্চুরি থাকলেও ওয়ানডে ও টেস্ট দুই ফরম্যাটেই চারটি করে শতক হাঁকিয়েছেন তিনি। এছাড়া টেস্টে ১৫টি এবং ওয়ানডেতে ২৩টি অর্ধশতক রয়েছে মুশফিকের।
এখন পর্যন্ত ৫৪ টেস্ট, ১৬৮ ওয়ানডে ও ৫৯টি টি ২০ ম্যাচ খেলে ব্যাট হাতে মুশফিকের সংগ্রহ যথাক্রমে ৩২৬৫, ৪১১৯ ও ৭২৬ রান। সব ফরম্যাট মিলিয়ে মোট ৮১১০ রানের মালিক মুশ

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *