ভারত-শ্রীলঙ্কা ম্যাচ দিয়ে আজ নিদাহাস ট্রফি শুরু

মাথাভাঙ্গা মনিটর: নিদাহাস ট্রফি ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজের উদ্বোধনী ম্যাচে আজ মঙ্গলবার মুখোমুখি হচ্ছে স্বাগতিক শ্রীলঙ্কা ও সফরকারী ভারত। জয় দিয়ে আসর শুরু করাই প্রধান লক্ষ্য দু’দলের। কলম্বোর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় ম্যাচটি শুরু হবে। টুর্নামেন্টের আরেক দল বাংলাদেশ। আগামী ৮ মার্চ ভারতের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে নিজেদের মিশন শুরু করবে সাকিববিহীন টাইগাররা।

শক্তিমত্তার দিক দিয়ে এ সিরিজে শ্রীলঙ্কা-ভারতের মধ্যে কেউই এগিয়ে নেই। কারণ দু’টি দলই তারুণ্য নির্ভর। সাবেক অধিনায়ক অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুজকে ছাড়াই খেলতে নামছে লঙ্কানরা। এছাড়া তরুণদের নিয়েই নিজেদের স্কোয়াড সাজিয়েছে শ্রীলঙ্কা। এরপরও বেশ ফুরফুরে মেজাজেই রয়েছে স্বাগতিকরা। কারণ সদ্যই বাংলাদেশ সফর থেকে শতভাগ সাফল্য নিয়ে এসেছে লঙ্কানরা। বাংলাদেশ-জিম্বাবুয়েকে নিয়ে আয়োজিত ত্রিদেশীয় সিরিজের শিরোপা জিতে দলটি।

এরপর বাংলাদেশের বিপক্ষে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ ১-০ ব্যবধানে জিতে নেয় শ্রীলঙ্কা। দুই ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজও জিতে নেয় তারা। তাই ওয়ানডে, টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে পাওয়া সাফল্যকে সঙ্গী করে নিদাহাস ট্রফিতে খেলতে নামছে লংঙ্কানরা।

এবার নিজ মাঠে তাই সিরিজের শুরুটা দুর্দান্তভাবেই করতে চাইছেন শ্রীলঙ্কার ওপেনার উপুল থারাঙ্গা। তিনি বলেন, ‘ভালো শুরু সবসময়ই গুরুত্বপূর্ণ। ছোট ফরম্যাটে ভালো শুরু করতে পারলে চাপ অনেকাংশেই কমে যায়। তাই আমাদের চাওয়া শুভ সূচনা। দলের সবাই আত্মবিশ্বাসী। ভালো ক্রিকেট খেলতে পারলে সাফল্য ধরা দেবে। বাংলাদেশ সফরে যেভাবে আমরা খেলেছি, ঠিক সেভাবেই খেলার চেস্টা করবো আমরা। দেশের মাটিতে শিরোপা জয় করাই আমাদের লক্ষ্য।’

পক্ষান্তরে নিজেদের রির্জাভ বেঞ্চ ঝালিয়ে নেয়ার পরীক্ষায় ভারত। দলের সেরা ছয় খেলোয়াড়কে আসন্ন সিরিজের জন্য বিশ্রাম দিয়েছে তারা। নিয়মিত অধিনায়ক বিরাট কোহলি ও সাবেক দলপতি মহেন্দ্র সিং ধোনিও রয়েছেন বিশ্রামের তালিকায়। তাই রোহিত শর্মার নেতৃত্বে তরুণদের জন্য নিজেদের প্রমাণ করার মঞ্চ হচ্ছে নিদাহাস ট্রফি। ঋসভ পান্থ, দীপক হুদা, মোহাম্মদ সিরাজ, ওয়াশিংটন সুন্দররা নিজেদের প্রমাণ করার জন্য মুখিয়ে আছেন।

দল তারুণ্যনির্ভর হলেও নিদাহাস ট্রফিতে ভালো পারফরমেন্স করার ব্যাপারে আশাবাদী ভারতের মিডল-অর্ডার ব্যাটসম্যান মনিষ পান্ডে। তিনি বলেন, ‘আমাদের এই দলটি তারুণ্যনির্ভর। তবে দলের সবাই ভালো পারফরমেন্স করার জন্য মুখিয়ে আছে। শ্রীলঙ্কার কন্ডিশন দলের জন্য সমস্যা হবে না। তাই দলগত পারফরমেন্স করতে পারলে ভালো ফল করা সম্ভব হবে। আমাদের লক্ষ্য শিরোপা জয়। তবে টুর্নামেন্টের শুরুটা ভালো করতে হবে। সেই লক্ষ্য নিয়ে আমরা মাঠে নামবো।’

স্বাধীনতার ৭০ বছর পূর্তি উপলক্ষে নিজেদের মাঠে ভারত ও বাংলাদেশকে নিয়ে ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজ আয়োজন করছে শ্রীলঙ্কা। ডাবল-লিগ পদ্ধতিতে প্রত্যক দল একে অপরের বিপক্ষে ২টি করে ম্যাচ খেলবে। লিগ পর্বে চারটি করে ম্যাচ খেলার সুযোগ পাবে প্রতিটি দল। পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষ দু’দল আগামী ১৮ মার্চ খেলবে ফাইনাল। টুর্নামেন্টের সবগুলো ম্যাচই অনুষ্ঠিত হবে কলম্বোর আর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *